৭১-এ পা দিলেন মিঠুন চক্রবর্তী



বিনোদন ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
মিঠুন চক্রবর্তী

মিঠুন চক্রবর্তী

  • Font increase
  • Font Decrease

আজ বলিউড-টলিউড তারকা মিঠুর চক্রবর্তীর বয়সের ক্যালেন্ডারে যোগ হলো আরও একটা বছর। আজ মিঠুনের জন্মদিন। ৭১ বছর আগে আজকের দিনে পৃথিবীতে প্রথম কেঁদেছিলেন তিনি।

 মিঠুন চক্রবর্তী

মিঠুন চক্রবর্তীর আসল নাম গৌরাঙ্গ চক্রবর্তী। ১৯৫০ সালের ১৬ জুন বাংলাদেশের বরিশালে জন্মগ্রহণ করেছেন বর্ষীয়ান এই অভিনেতা। বরিশাল জেলা স্কুলে পড়েছিলেন তিনি। পরবর্তীতে কলকাতার স্কটিশ চার্চ কলেজে রসায়নে স্নাতক ডিগ্রি লাভ করেন। এছাড়াও ফিল্ম অ্যান্ড টেলিভিশন ইনস্টিটিউট অব ইন্ডিয়া (এফটিআইআই) থেকে গ্র‍্যাজুয়েশন করেন তিনি।

জনপ্রিয় পরিচালক মৃণাল সেনের পরিচালনায় ‘মৃগয়া’ চলচ্চিত্রের মধ্য দিয়ে ১৯৭৬ সালে রূপালি জগতে প্রবেশ করেন মিঠুন চক্রবর্তী। ছবিটিতে অসামান্য অভিনয়ের জন্য সেরা অভিনেতা হিসেবে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার ঘরে তুলেছিলেন ৭১ বছর বয়সী এই তারকা।

 মিঠুন চক্রবর্তী

তবে তার ব্যবসাসফল ছবি হলো- ১৯৮২ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত ‘ডিস্কো ড্যান্সার’। এতে জিমি চরিত্রে অভিনয় করে দর্শকমহলে বেশ সাড়া ফেলেন তিনি।

‘ডিস্কো ড্যান্সার’-এর পাশাপাশি তিনি উপহার দিয়েছেন- ‘সুরক্ষা’, ‘সাহস’, ‘ওয়ান্টেড’, ‘বক্সার’, ‘পেয়ার ঝুকতা নেহি’, ‘পেয়ারি বেহনা’, ‘অভিনাশ’, ড্যান্স ড্যান্স’, ‘প্রেম প্রতিজ্ঞা’, ‘মুজরিম’ ও ‘অগ্নিপথ’-এর মতো অসংখ্য ব্লকবাস্টার ছবি।

 মিঠুন চক্রবর্তী

৪৫ বছরের ক্যারিয়ারে তিনি অভিনয় করেছেন সাড়ে তিনশ’র বেশি ছবিতে। একবার বা দু’বার নয়, সেরা অভিনেতা হিসেবে তিনবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার ঘরে তুলেছেন তিনি।

হিন্দির পাশাপাশি বাংলা, উড়িয়া, ভোজপুরি, তামিল, তেলেগু, কান্নাড়া এবং পাঞ্জাবী ভাষার ছবিতেও কাজ করেছেন তিনি।

 মিঠুন চক্রবর্তী

একটি দারুণ রেকর্ড রয়েছে মিঠুন চক্রবর্তীর। ১৯৮৯ সালে প্রধান অভিনেতা হিসেবে তার ১৯টি ছবি মুক্তি পায়। এই রেকর্ড আজ পর্যন্ত কেউ ভাঙতে পারেনি।