স্বপ্ন ছুঁয়েছে’ পদ্মার এপার-ওপার

শাহরুখের সন্তানদের জন্য এডিট করা হয়েছিল ‘কাল হো না হো’



বিনোদন ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
সাইফ আলি খান, প্রীতি জিনতা ও শাহরুখ খান

সাইফ আলি খান, প্রীতি জিনতা ও শাহরুখ খান

  • Font increase
  • Font Decrease

শাহরুখ খানের তার ক্যারিয়ারের শুরু থেকে এখনও পর্যন্ত যতো জনপ্রিয় ছবি দর্শকদের উপহার দিয়েছেন তার মধ্যে ‘কাল হো না হো’ অন্যতম। ২০০৩ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত এই ছবিটি জনপ্রিয়তার পাশাপাশি সিনেমা প্রেমিরা এর প্রশংসায় পঞ্চমুখও হয়েছে। সেই সঙ্গে পেয়েছে বেশ কয়েকটি পুরস্কারও।

‌‌‘কাল হো না হো’র শেষ দৃশ্যে শাহরুখের মৃত্যু কাঁদিয়েছিল চলচ্চিত্র প্রেমীদের। কিন্তু জানেন কি বলিউড বাদশার সন্তানদের জন্য বিশেষভাবে এডিট করা হয়েছিলো এই ছবিটি।

মুক্তির এক যুগ পর সে কথা নিজে মুখেই স্বীকার করেছিলেন শাহরুখ খান। বলিউড কিং জানিয়েছিলেন ‘কাল হো না হো’তে তার মৃত্যুর দৃশ্যটি তার সন্তানদের কখনও দেখানো হয়নি।

ছবিটির নির্মাতা করণ জোহর নিজে শাহরুখ খানের সন্তানদের জন্য সেই দৃশ্যটি এডিট করেছিলেন বলেও জানান শাহরুেখ।

শাহরুখ খান ছাড়াও ‘কাল হো না হো’তে অভিনয় করেছিলেন সাইফ আলি খান ও প্রীতি জিনতা। এছাড়াও ছিলেন জয়া বচ্চন ও প্রয়াত অভিনেত্রী রীমা লাগু।

শাহরুখের ‘পাঠান’র পোস্টার প্রকাশ, হলিউড ছবির কপির অভিযোগ



বিনোদন ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
শাহরুখের ‘পাঠান’র পোস্টার প্রকাশ, হলিউডের ছবির মিল পেলেন সমালোচকরা

শাহরুখের ‘পাঠান’র পোস্টার প্রকাশ, হলিউডের ছবির মিল পেলেন সমালোচকরা

  • Font increase
  • Font Decrease

বলিউডে তিন দশক আজ পূর্ণ করেছেন শাহরুখ খান। এই বিশেষ দিনে  কিং খান তার বহুপ্রতিক্ষীত ছবি ‘পাঠান’-এর পোস্টার শেয়ার করেছেন। শাহরুখ-ভক্তরা অভিনেতার নতুন ছবির পোস্টার দেখে বেশ উচ্ছ্বসিত।

তবে সেই পোস্টারে কপির অভিযোগ তুলে অভিনেতা-সমালোচক কেআর। সেই সঙ্গে বের করেছেন এক গাদা খুঁতও। তিনি ‘পাঠানের’ পোস্টারের সঙ্গে হলিউড ছবির পোস্টার কপির মতো অভিযোগও তুলেছেন তিনি। ইদরিশ এলবার হলিউড সিনেমা ‘বিস্ট’-এর পোস্টার কপি করেছেন শাহরুখ খান ও তার পরিচালক দাবি কেআরের।

কেআরকে টুইটে লিখেছেন, ‘হে ঈশ্বর! কপিউড কখনই উন্নতি করবে না! পোস্টারটিও চুরি হয়েছে। পোস্টারও আসল বানাতে পারল না!’

পাঠানের পোস্টার প্রকাশের কিছুক্ষণ পরে, একাধিক টুইট করেছেন কেআরকে। তিনি লিখেছেন, ‘ভাইজান শাহরুখ খান, শুধু এক হাতে হাতকড়া? আর বন্দুকটা ঠিকমতো ধরতেও পারেননি। সিনেমাটাও এমনই হবে!’

পরক্ষণে আরও একটি টুইটে লিখেছেন, ‘আমার একটি সহজ প্রশ্ন... পরিচালক, অভিনেতা এবং প্রযোজক যদি একসঙ্গে মন দিয়ে একটি ভালো যুক্তিযুক্ত পোস্টার তৈরি করতে না পারেন, তবে তারা একটি ভালো ছবি কীভাবে তৈরি করবেন। নব্বই দশকে এসব দেখানো চলত, কিন্তু এখন এসব চলে না।’

নেটমাধ্যমে কেআরকে-এর এই টুইট রীতিমতো শোরগোল ফেলেছে। শাহরুখের আসন্ন সিনেমার পোস্টার ঘিরে তুমুল চর্চা চলছে।

প্রায় ৫ বছর পর ‘পাঠান’ দিয়ে কামব্যাক করছেন শাহরুখ খান। সবশেষ ২০১৮ সালে ‘জিরো’ ছবিতে তাকে দেখা গিয়েছিল। এই ছবিতে তার সঙ্গে কাজ করছেন দীপিকা পাড়ুকোন। অন্য চরিত্রে রয়েছেন জন আব্রাহামও। পরিচালক সিদ্ধার্থ আনন্দের দাবি, অ্যাকশন ঘরানার ছবির ক্ষেত্রে নতুন মাইলফলক সৃষ্টি করবে এই ছবি। ২০২৩ সালের ২৫ জানুয়ারি সিনেমা হলে মুক্তি পাবে ‘পাঠান’। হিন্দি, তামিল এবং তেলুগু তিন ভাষায় মুক্তি পাবে এই ছবি।

;

দুর্ঘটনার কবলে রণবীর কাপুর, দুই গাড়ির ধাক্কা



বিনোদন ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
পথ দুর্ঘটনার কবলে রণবীর কাপুর, দুই গাড়ির ধাক্কা

পথ দুর্ঘটনার কবলে রণবীর কাপুর, দুই গাড়ির ধাক্কা

  • Font increase
  • Font Decrease

শমশেরার ট্রেলার লঞ্চ অনুষ্ঠানে যাওয়ার পথে দুর্ঘটনার কবলে পড়েছেন অভিনেতা রণবীর কাপুর। এই দুর্ঘটনার কথা তিনি নিজেই জানিয়েছেন। তবে এই সড়ক দুর্ঘটনায় অল্পের জন্য রক্ষা পেয়েছেন অভিনেতা।

অপর একটি গাড়ি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে রণবীর কাপুরের গাড়িতে এসে ধাক্কা মারে। রণবীর কাপুর ট্রেলার লঞ্চ ইভেন্টে এসেছিলেন, কিন্তু তাঁর মুখে একটি অদ্ভুত চিন্তার ছাপ দেখা দেয়। রণবীর কাপুরকে যখন একটি প্রশ্ন করা হয়েছিল, উত্তর দেওয়ার সময় তিনি বলেন যে তাঁর ছবির ট্রেলার লঞ্চের আগে একটি দুর্ঘটনা ঘটেছে। জানান, তার সত্যিই খারাপ দিন যাচ্ছে।

আসলে ট্রেলার লঞ্চের স্থানে পৌঁছানোর সময়, তার গাড়িটি একটি মিনি দুর্ঘটনার কবলে পড়ে, কারণ কেউ ভুলবশত তার গাড়িটিকে ধাক্কা দেয়। সবার জন্য সুখবর হল অভিনেতা সম্পূর্ণ নিরাপদ, সুস্থ এবং অক্ষত। এই দিন ‘শামশেরা’র ট্রেলারটি দর্শকদের কাছ থেকে ইতিবাচক প্রতিক্রিয়া পেয়েছে। এই প্রথমবার তিনি ডবল রোল করলেন, ডাকাত সর্দারের বেশে মারকাটারি দৃশ্যে সিনেমার ট্রেলার মন জয় করেছে দর্শকদের। এবার শুধু অপেক্ষা ২২ জুলাইয়ের জন্য।

;

পালাকারের 'উজানে মৃত্যু' নাটকের ৪৯ ও ৫০তম প্রদর্শনী



নিউজ ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
পালাকারের 'উজানে মৃত্যু' নাটকের ৪৯ ও ৫০তম প্রদর্শনী

পালাকারের 'উজানে মৃত্যু' নাটকের ৪৯ ও ৫০তম প্রদর্শনী

  • Font increase
  • Font Decrease

শিল্পকলা একাডেমিতে নাট্যদল পালাকার আজ শুক্রবার পরিবেশন করবে তাদের স্টুডিও প্রযোজনা ‘উজানে মৃত্যু’। স্টুডিও থিয়েটার হলে বিকেল ৫.৩০ এবং সন্ধ্যা ৭.৩০ এ আজ একই দিনে নাটকটির ৪৯ ও ৫০তম প্রদর্শনী করবে পালাকার।

সৈয়দ ওয়ালী উল্লাহ বিশ্বমনস্ক, ইহজাগতিক চেতনায় শাণিত। তাই তিনি 'উজানে মৃত্যু' নাটকেও অন্ধবিশ্বাসের নাড়ি কেটে দেয়ার ছুরি চালিয়েছেন অত্যন্ত শিল্পসফলভাবে, পাশাপাশি মানবতাবাদী দর্শনকে প্রাধান্য দিয়েছেন। প্রান্তিক মানুষের দুর্দশা ট্র্যাজিক সুরের ব্যঞ্জনায় চিত্রায়ন করেছেন। ‘উজানে মৃত্যু’ সৈয়দ ওয়ালীউল্লাহ রচিত সবশেষ নাটক। তিনটি প্রতীকী চরিত্রের অস্তিত্বহীন অনিশ্চিত গন্তব্যের পরিক্রমায় মানবজীবনের প্রকৃত সত্যের সন্ধান নিয়ে নাটকটি। এই অস্তিত্বহীন মানবজীবন ও তার সংগ্রামকে নিরীক্ষার অভিপ্রায়ে দেশের অন্যতম পরিশ্রমী নাট্যদল পালাকার মঞ্চে এনেছে তাদের নতুন প্রযোজনা উজানে মৃত্যু। নাটকটির নির্দেশনা দিয়েছেন তরুণ প্রজন্মের অন্যতম প্রতিভাবান নাট্য নির্দেশক শামীম সাগর।

অস্তিত্ববাদ, রূপক-প্রতীকী দৃশ্যের অবতারণা ও নিরীক্ষার পরিমিতি প্রয়োগে সম্পূর্ণ দৃশ্যকাব্যটি সুখ-দর্শনের পাশাপাশি সঞ্চার করে এক গভীর জীবনবোধ। এখানেই মনে হয় এ্যাবসার্ড নাটকের অন্যতম সার্থকতা; আর এটাই খুব যত্ন শীলভাবে দর্শকদের সামনে উপস্থাপন করে সফলতার পরিচয় দিয়েছেন নির্দেশক। পালাকার’র উজানে মৃত্যু মৃত্যু থেকে মুখ ফিরিয়ে জীবনের পথে, সংগ্রামের পথে চলার কথা বলে।

নাটকটিতে অভিনয় করছেন আমিনুর রহমান মুকুল, কাজী ফয়সল, চারু পিন্টু, ফাহমিদা মল্লিক শিশির,   বাবর খাদেমী, সংগীত পরিকল্পক অজয় দাশ, পোশাক পরিকল্পক ফাহমিদা মল্লিক শিশির, কোরিওগ্রাফি অনিকেত পাল বাবু, দ্রব্যসামগ্রী ও পচ্ছদ চারু পিন্টু, মঞ্চ পরিকল্পক শামীম সাগর।

;

আড়াল করে নিজেকে নিয়ে আছি, এটাই স্বস্তি: মৌসুমী



কন্ট্রিবিউটিং এডিটর, বার্তা ২৪.কম
মৌসুমী

মৌসুমী

  • Font increase
  • Font Decrease

ঢাকাই সিনেমার প্রিয়দর্শিনী মৌসুমীকে ঘিরে সম্প্রতি আলোচনার শেষ নেই। বুধবার (২৩ জুন) ইনস্টাগ্রামে তিনি একটি পোস্ট দেন।

কারণ তার সাম্প্রতিক করা ইনস্টাগ্রামের একাধিক পোস্টে অভিমান, চাপা-ক্ষোভ ফুটে উঠছে। বুধবারের স্ট্যাটাসেও ইঙ্গিত পাওয়া গেলো- যেন অভিনেত্রীর মনে কিছু অভিমান, কিছু ব্যথা রয়ে গেছে। 

মৌসুমী লেখেন, ‘লুকিয়ে থাকতে চাইলেই লুকিয়ে থাকা যায়। সামনে যেটা থাকে সেটা শরীর। আমি এখন শামুকের মতো হয়ে গেছি। আড়াল করে নিজেকে নিয়ে আছি, এটাই স্বস্তি। ’

এমনই অভিমানী পোস্টে তিনি আরো লেখেন, ‘যখন দিনের আলো দেখার সুযোগ হয়, নিজেকে বেমানান লাগে। ’

এর পাশাপাশি বলেছেন সিলেটের বানভাসি মানুষের কথাও। মৌসুমী লেখেন, ‘সিলেটবাসীর কাছে ছুটে যেতে ইচ্ছে করে। হয়তো সুযোগ হলে যাবো, আপনারা সবাই তাদের জন্য দোয়া করবেন। ’

বেশ কিছুদিন ধরে স্বামী ওমর সানীর সঙ্গে মৌসুমীর মুখ দেখাদেখি, এমনকি কথাও বন্ধ ছিল। সানীর দাবি, এই দূরত্বের জন্য দায়ী জায়েদ খান। তিনি মৌসুমীকে বিরক্ত করতেন। এ নিয়ে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতিতে লিখিত অভিযোগও দেন সানী।

এরপর মৌসুমী এক অডিও বিবৃতিতে জানান, জায়েদ তাকে কখনো বিরক্ত করেননি। পরে অবশ্য মৌসুমী-সানীর পুত্র ফারদিন মুখ খোলেন। তিনি পুরো বিষয়টি খোলাসা করেন এবং বাবা-মা’র মধ্যকার ভুল বোঝাবুঝির অবসান ঘটান। এরপরেই ১৬ জুন মধ্যরাতে সানীর প্রকাশ করা ছবিতে পুরো পরিবারকে একসঙ্গে খাবার টেবিলে দেখা যায়।

এদিকে সম্প্রতি ওমর সানী আরেক অডিও বার্তায় জানান, তাদের (ওমর সানী-মৌসুমী) মধ্যে যে সমস্যা ছিল তা মিটে গেছে। তারা এখন একই ছাদের নিচে একসঙ্গে আছেন। পরিবার নিয়ে ভালো আছেন, সুখে আছেন। 

;