যুক্তরাজ্যে হাইড্রক্সিক্লোরোকুইনের ট্রায়াল শুরু

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

কোভিড-১৯ প্রতিরোধে ম্যালেরিয়ার দুটি ওষুধের কার্যকারিতার ট্রায়ালে অংশ নেবে ব্রিটিশ স্বাস্থ্যকর্মীরা। বৃহস্পতিবার (২১ মে) থেকে অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের নেতৃত্বে তারা এই ট্রায়াল শুরু করবে।

আমেরিকার প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প জানিয়েছেন, এর মধ্যে একটি ওষুধ তিনি সেবন করছেন।

নভেল করোনাভাইরাস প্রতিরোধে ক্লোরোকুইন এবং হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন কতটা কার্যকরী তা নিশ্চিত করতে ‘কোপকোভ’ (সিওপিসিওভি) স্টাডিতে ইউরোপ, আফ্রিকা, এশিয়া এবং দক্ষিণ আমেরিকার ৪০ হাজারেরও বেশি স্বাস্থ্যকর্মী অংশ নেবেন।

হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন ব্যবহারে চিকিৎসকদের সতর্কবার্তা সত্ত্বেও এই সপ্তাহের শুরুতে ট্রাম্প জানান, তিনি ভাইরাস প্রতিরোধের ওষুধ হিসেবে এটি গ্রহণ করছেন। ফলে এই ওষুধের গুরুত্ব আরো বেড়ে গেছে।

ব্যাংককের মাহিডল অক্সফোর্ড ট্রপিক্যাল মেডিসিন রিসার্চ ইউনিট (মোরু) এর সহযোগিতায় অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়।

বৃহস্পতিবার (২১ মে) থেকে ব্রিটন এবং অক্সফোর্ডের হাসপাতালে এই ট্রায়াল শুরু করবে। কোভিড-১৯ আক্রান্ত বা সন্দেহজনক ব্যক্তির সংস্পর্শে আসা ব্রিটিশদের ওপর এই পরীক্ষা চালানো হবে।

অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক এবং এই স্টাডির সহকারি প্রধান তদন্তকারী নিকোলাস হোয়াইট বলেন, ‘আমরা সত্যিই জানি না ক্লোরোকুইন বা হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন কোভিড-১৯ এর জন্য উপকারী নাকি ক্ষতিকারক। এটি জানার সবচেয়ে ভালো উপায় হলো গণহারে ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল করা’।

ব্রিটেন, ইউরোপ এবং আফ্রিকায় তিন মাসের জন্য হয় হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন অথবা প্ল্যাসেবো ব্যবহার করা হবে। আর এশিয়ায় ক্লোরোকুইন অথবা প্ল্যাসেবো।

মোরু জানিয়েছে, জুনের মধ্যে যুক্তরাজ্যের ২৫টি স্থানে তারা এই ট্রায়াল চালাবে। থাইল্যান্ড, দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া, ইতালি, পর্তুগাল, আফ্রিকা এবং দক্ষিণ আমেরিকাতেও আরো জায়গায় ট্রায়াল চালানোর পরিকল্পনা আছে। এই বছরের শেষের দিকে এই গবেষণার ফলাফল পাওয়া যাবে।

আপনার মতামত লিখুন :