তুমি ঘুমিয়ে থাকো, তোমার স্বপ্নের বাংলা আমরা গড়ব

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

  • Font increase
  • Font Decrease

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ‘তোমার দেওয়া ইতিহাস মুছে ফেলা যাবে না। সত্যকে মিথ্যায় ঢেকে রাখা যায় না। তোমার কাছে আমাদের অঙ্গীকার তোমার দেখা স্বপ্ন আমরা পূরণ করব। তুমি আজ টুঙ্গিপাড়ায় ঘুমিয়ে আছ। সেখানেই তুমি ঘুমিয়ে থাকো, তোমার স্বপ্নের সোনার বাংলাদেশ আমরাই গড়ব। তোমার দেওয়া পতাকা বেঁচে থাকবে চিরদিন।’ 

মঙ্গলবার (১৭ মার্চ) রাতে জাতীয় শিশু দিবস এবং জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী ‘মুজিব বর্ষ’ উপলক্ষে জাতির উদ্দেশে দেওয়া ধারণকৃত ভাষণে তিনি এ কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ায় উদ্বোধন অনুষ্ঠানে কিছুটা পরিবর্তন আনা হয়েছে। তবে বছরব্যাপী আমরা মুজিব বর্ষ উদযাপন করব। ২০২১ সালের ২৬ মার্চ উদযাপিত হবে আমাদের স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী। শুধু বাংলাদেশ নয়, বিভিন্ন বন্ধুপ্রতীম দেশ, ইউনেস্কো, ওআইসিসহ বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংস্থা মুজিববর্ষ উদযাপনে অংশীদার হয়েছে।’

আরও পড়ুন: দুর্ভিক্ষে গোলার ধান বিলিয়ে দিতেন বঙ্গবন্ধু

বঙ্গবন্ধুকন্যা বলেন, ‘আজকের এই দিনে জন্ম নিয়েছিলেন এক মহাপুরুষ। তিনি আমার পিতা শেখ মুজিবুর রহমান। তিনি আমাদের বাংলাদেশ নামক একটি দেশ উপহার দিয়েছেন। তিনি সংগ্রাম করেছেন আজীবন। ছোটবেলা থেকে মানুষের দুঃখ-কষ্ট তাকে (বঙ্গবন্ধু) ব্যথিত করতো। তিনি নিজের জামা-ছাতা বিলিয়ে দিতেন, দুর্ভিক্ষের সময় অকাতরে বিলিয়ে দিতেন গোলার ধান। এই বঙ্গভূমির মানুষের দুঃখ তাকে ব্যথিত করতো, তাই তো তিনি বঙ্গবন্ধু।’

আরও পড়ুন: 'বঙ্গবন্ধু জনদরদি ও আপসহীন ছিলেন'

বক্তব্যে আজকের প্রজন্মের শিশু-কিশোরদের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শে গড়ে ওঠার আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

এদিন সাড়ম্বরে দেশব্যাপী বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবর্ষের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান আয়োজনের কথা ছিল। কিন্তু চলমান করোনাভাইরাস পরিস্থিতির কারণে কর্মসূচিতে পরিবর্তন করা হয়।

আরও পড়ুন: শতশিশুর কণ্ঠে বেজে উঠল ‘ধন্য মুজিব ধন্য’

বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে ২০২০ সালের ১৭ মার্চ থেকে ২০২১ সালের ১৭ মার্চ, অর্থাৎ জাতির পিতার এক জন্মদিন থেকে আরেক জন্মদিন পর্যন্ত এক বছরকে মুজিব বর্ষ হিসেবে ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ সরকার।

আপনার মতামত লিখুন :