ময়মনসিংহে করোনা সচেতনতায় মাইক হাতে এসপি



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, ময়মনসিংহ
ময়মনসিংহে করোনা সচেতনতায় মাইক হাতে এসপি, ছবি: বার্তা২৪.কম

ময়মনসিংহে করোনা সচেতনতায় মাইক হাতে এসপি, ছবি: বার্তা২৪.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

‌‌‘অযথা কেউ বাইরে ঘোরাফেরা করবেন না, বিশেষ প্রয়োজনে কেউ যদি বের হন তাহলে মাস্ক ব্যবহার করবেন, করোনা নিয়ে আতঙ্কিত না হয়ে সরকারের স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলেন’ এভাবেই করোনাভাইরাস মোকাবিলায় সাধারণ মানুষকে সচেতন করতে রাস্তায় মাইকিং করছেন ময়মনসিংহ জেলা পুলিশ সুপার (এসপি) মোহা. আহমার উজ্জামান।

রোববার (২৯ মার্চ) সকালে নগরের শম্ভুগঞ্জ মোড়ে ঘণ্টাব্যাপী সচেতনতামূলক এমন প্রচারণা চালান তিনি।

বিভিন্ন স্পটে রাখা সাবান পানি দিয়ে হাত ধোয়ার পরামর্শ দিয়ে এসপি বলেন, ‘করোনা সংক্রমণে বাংলাদেশের মানুষ হুমকির মুখে রয়েছে। স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা যেভাবে আমাদের নির্দেশ দিচ্ছেন, তা সঠিকভাবে মানলেই করোনা প্রতিরোধ সম্ভব।’

সরকারের সকল নির্দেশনা মেনে চলার প্রতি শ্রদ্ধাশীল হওয়ার জন্য চালকদের আহ্বান জানান তিনি। কেউ আইন না মানলে তার বিরুদ্ধে কঠোর আইনি ব্যবস্থা গ্রহণেরও হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন পুলিশ সুপার মোহা. আহমার উজ্জামান।

এ সময় তার সঙ্গে আরও উপস্থিত ছিলেন- ট্রাফিক ইন্সপেক্টর সৈয়দ মাহবুবুর রহমান, ট্রাফিক সার্জেন্ট সালমান খান, ডিবির ওসি শাহ কামাল আকন্দ প্রমুখ।

২৪ ঘণ্টায় ৬ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১১০৫



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

করোনায় আক্রান্ত হয়ে দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ছয়জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে ২৯ হাজার ১৬০ জনের প্রাণ কেড়ে নিল এই ভাইরাস।

এদিকে দ্বিতীয় দিনের মতো শনাক্ত রোগীর সংখ্যা দুই হাজারের নিচে নেমেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় ১ হাজার ১০৫ জন রোগী শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে দেশে শনাক্ত রোগীর সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ১৯ লাখ ৭৬ হাজার ৭৮৭ জনে।

শনিবার (২ জুলাই) স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে পাঠানো করোনাবিষয়ক নিয়মিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় ৮ হাজার ৩৫৭টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়। পরীক্ষার বিপরীতে শনাক্তের হার ১৩ দশমিক ২২ শতাংশ।

গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা থেকে সুস্থ হয়েছেন ২৩৩ জন। এ পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন ১৯ লাখ ৭ হাজার ৯৯০ জন।

;

শিক্ষক উৎপল হত্যা: জিতুকে আজীবনের জন্য বহিষ্কার



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
শিক্ষক উৎপল হত্যা: জিতুকে আজীবনের জন্য বহিষ্কার

শিক্ষক উৎপল হত্যা: জিতুকে আজীবনের জন্য বহিষ্কার

  • Font increase
  • Font Decrease

সাভারের আশুলিয়ায় শিক্ষক উৎপল কুমার সরকার হত্যার ঘটনায় গ্রেফতার আশরাফুল ইসলাম জিতুকে স্কুল থেকে আজীবনের জন্য বহিষ্কার করা হয়েছে।

শুক্রবার (১ জুলাই) সকালে হাজী ইউনুস আলী স্কুল অ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ সাইফুল ইসলাম এ তথ্য জানান।

তিনি বলেন, ‘জিতুকে স্কুল থেকে আজীবনের জন্য বহিষ্কার করা হয়েছে। তার সর্বোচ্চ শাস্তি দাবি করছি, যাতে কখনও কোনও শিক্ষকের ওপর এই ধরনের হামলা করার সাহস কেউ না পায়।’

এদিকে শিক্ষক উৎপল কুমার হত্যাকাণ্ডের প্রতিবাদে বন্ধ থাকা হাজী ইউনুছ আলী স্কুল অ্যান্ড কলেজে পুলিশ পাহারায় শনিবার (২ জুলাই) থেকে ক্লাস শুরু হচ্ছে। শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টায় আশুলিয়ার চিত্রশাইলে হাজী ইউনুছ আলী স্কুল অ্যান্ড কলেজে শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের সঙ্গে ঢাকা জেলা পুলিশের মতবিনিময় সভা শেষে এই সিদ্ধান্তের কথা জানানো হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা জেলা পুলিশ সুপার মারুফ হোসেন সরদার।

সভায় শিক্ষক উৎপল কুমারের হত্যাকারী জিতুকে গ্রেফতারের জন্য পুলিশকে ধন্যবাদ জানায় প্রতিষ্ঠানটির শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা। পাশাপাশি হত্যাকারীর দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি, নিহতের পরিবারের ক্ষতিপূরণ ও নিরাপত্তা নিশ্চিতের দাবি করে তারা।

প্রসঙ্গত, গত ২৫ জুন দুপুরে হাজী ইউনুস আলী স্কুল অ্যান্ড কলেজে ক্রিকেট খেলার স্ট্যাম্প দিয়ে শিক্ষক উৎপলকে এলোপাতাড়ি আঘাত করে পালিয়ে যায় দশম শ্রেণির ছাত্র জিতু। পরে আহত শিক্ষককে দ্রুত উদ্ধার করে গণস্বাস্থ্য সমাজভিত্তিক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। অবস্থার অবনতি হলে এনাম মেডিক্যালে আইসিইউতে রাখা হয় তাকে। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সোমবার ভোরে তার মৃত্যু হয়। ঘটনার পরপরই নিহত শিক্ষকের ভাই অসীম কুমার বাদী হয়ে আশুলিয়া থানায় স্কুলছাত্রকে প্রধান আসামি ও আরও তিন-চার জনকে অজ্ঞাত করে একটি মামলা করেন।

প্রধান আসামি জিতুকে গত বুধবার গাজীপুর থেকে গ্রেফতার করে র‍্যাব। বৃহস্পতিবার তাকে আশুলিয়া থানায় হস্তান্তর করা হয়। পুলিশ তার ১০ দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠায়। আদালত তার পাঁচ দিনের  রিমান্ড মঞ্জুর করেন। একই মামলায় গ্রেফতার জিতুর বাবাও পাঁচ দিনের রিমান্ডে রয়েছে।

;

লক্ষ্মীপুরে ভেজাল বীজে সর্বস্বান্ত কৃষক, প্রতিবাদে মানববন্ধন



ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, লক্ষ্মীপুর
বীজ ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে মানববন্ধন করছেন কৃষকরা

বীজ ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে মানববন্ধন করছেন কৃষকরা

  • Font increase
  • Font Decrease

লক্ষ্মীপুরে উচ্চমূল্যে ভেজাল বীজ কিনে সবজি বপন করে সর্বস্বান্ত হয়েছে চাষিরা। এর প্রতিবাদে বীজ ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে মানববন্ধন করেছেন তারা।

শনিবার (২ জুলাই) দুপুুরে লক্ষ্মীপুর প্রেস ক্লাবের সামনে ঘণ্টাব্যাপী এই মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করা হয়। এতে সদর উপজেলার কালির চর এলাকার শতাধিক চাষি অংশগ্রহণ করেন। এসময় অসাধু বীজ ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণসহ ক্ষতিপূরণের দাবি জানান।

মানববন্ধনে চাষিরা অভিযোগ করে বলেন, বাজারের দোকানীরা নিম্মমানের বীজ দামি প্যাকেটজাত করে উচ্চমূল্যে বিক্রি করে তাদের সঙ্গে প্রতারণা করেছেন। শহরের ভক্তের গলির মাসুদ বীজ ভান্ডার থেকে এসব বীজ কিনে প্রতারিত হয়েছেন চাষিরা। এসব বীজের প্যাকেটের গায়ে আদনান সীড নামের সীল রয়েছে।

এতে করে ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মাঠের পর মাঠ ফসল নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। অথচ এসব প্যাকেটের গায়ে ভাইরাস মুক্ত লিখে চাষিদের প্রলুব্ধ করা হয়। আশেপাশের বরবটি-করলা ও শষা ক্ষেতসহ অন্যান্য ফসলের মাঠেও এর প্রভাব পড়ছে। তারা ক্ষতিগ্রস্থ হয়ে দিশেহারা হয়ে পড়েছেন। এসব চাষিরা প্রতারক ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণসহ সরকারের সহায়তা দাবি করেন।

মানববন্ধনে প্রতারিত চাষিদের মধ্যে বাবুল, ইউসুফ, সাইফুল, জিসান, শিপন, মাহবুব, আবুল বাশারসহ অর্ধশতাধিক চাষি অংশগ্রহণ করেন।

এ বিষয়ে বীজ ভান্ডারের মালিক মাসুদ দাবি করেন আবহাওয়া জনিত কারণে এমনটি হয়েছে। বীজে কোন প্রতারণা করা হয়নি। তার বীজ প্রক্রিয়াজাত করনের লাইসেন্স রয়েছে বলে দাবি করেন তিনি।

এদিকে উপ-সহকারি কৃষি কর্মকর্তা কামরুন নাহার জানান, কৃষকরা বিষয়টি আমাকে জানিয়েছে। মাঠ পরিদর্শন করে ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের প্রতারাণার বিষয়টি জানানো হবে।

এদিকে জেলা কৃষি সম্প্রসারণ বিভাগের উপ-পরিচালক ড. জাকির হোসেন বলেন, ঢেঁড়স, পেঁপেসহ এ জাতীয় সবজি চাষ করার সময় ভাল জাত এবং ভাল উৎস দেখে ক্রয় করতে হবে। ঢেঁড়সের মাধ্যমে এ ভাইরাসটি ছড়ায়। তাছাড়া ছোট ছোট পোকার মাধ্যমে এক গাছ থেকে অন্য গাছে দ্রুত বিস্তার ঘটায়। এটি যদি ক্ষেতে ছড়িয়ে পড়ে তা হলে পুরো খেতের ফসল নষ্ট করে ফেলে। বাজারে কিছু অসাধু ব্যবসায়ীর কারণে কৃষকরা ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে। এসব অসাধু ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস দেন এ কর্মকর্তা।

;

সোশ্যাল ইসলামী ব্যাংক ও টিএমএল রেমিট্যান্সের মধ্যে চুক্তি



নিউজ ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
সোশ্যাল ইসলামী ব্যাংক ও টিএমএল রেমিট্যান্সের মধ্যে চুক্তি

সোশ্যাল ইসলামী ব্যাংক ও টিএমএল রেমিট্যান্সের মধ্যে চুক্তি

  • Font increase
  • Font Decrease

মালয়েশিয়ায় টিএমএল রেমিট্যান্স কোম্পানির কার্যালয়ে সম্প্রতি সোশ্যাল ইসলামী ব্যাংক লিমিটেড ও টিএমএল রেমিট্যান্স এর মধ্যে ইনওয়ার্ড রেমিট্যান্স সেবা সংক্রান্ত বিষয়ে একটি কর্পোরেট চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়।

সোশ্যাল ইসলামী ব্যাংক লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী জাফর আলম- এর উপস্থিতিতে চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন ব্যাংকের আন্তর্জাতিক বিভাগের প্রধান মোঃ আকমল হোসেন ও টিএমএল এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক আলবার্ট লিম পো বোন।

 এছাড়াও মালয়েশিয়া সফরকালে ব্যাংকের  ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী জাফর আলম প্লাসিড এক্সপ্রেস, মার্চেন্ট ট্রেড এশিয়া এবং আরএইচবি ব্যাংক- এর সাথে বিজনেস মিটিং করেন।

;