৫১ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান থেকে একজনও পাস করেনি



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম
ছবি: বার্তা২৪.কম

ছবি: বার্তা২৪.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

২০২৪ সালের মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) ও সমমানের পরীক্ষায় ৫১টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান থেকে একজন শিক্ষার্থীও পাস করতে পারেনি।

রোববার (১২ মে) দুপুরে সচিবালয় আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান শিক্ষামন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী। এরআগে প্রধানমন্ত্রীর হাতে এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফলাফলের সারসংক্ষেপ তুলে দেন শিক্ষামন্ত্রী ও বোর্ডগুলোর চেয়ারম্যানরা।

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের ফলাফলের পরিসংখ্যান ঘেটে দেখে গেছে, সারা দেশের ২৯ হাজার ৮৬১টি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে শতভাগ পাস করেছে ২৯ হাজার ৬৮টি। আর পাসের খাতা খোলেনি ৫১টি প্রতিষ্ঠান। গত বছর যার সংখ্যা ছিলো ৪৮টি। এ বছর সেই তালিকায় আরও তিনটি প্রতিষ্ঠান যুক্ত হলো।

২০২৩ ও ২৪ সালের প্রাতিষ্ঠানিক পাসের হার বিশ্লেষণ করে দেখা যায়, ২০২৩ সালে পরীক্ষায় অংশ নেওয়া প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা ছিলো ২৯ হাজার ৭১৪টি। এ বছর অংশ নিয়েছে ২৯ হাজার ৮৬১টি। গত বছর শতভাগ পাস করেছে ২৩ হাজার ৫৪টি প্রতিষ্ঠান। পাস করতে পারেনি ৪৮টি প্রতিষ্ঠান।

এবার ১১টি শিক্ষা বোর্ডের অধীনে ২০ লাখ ২৪ হাজার ১৯২ জন পরীক্ষার্থী এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় অংশ নিয়েছেন। এর মধ্যে নয়টি সাধারণ শিক্ষা বোর্ডের অধীনে পরীক্ষার্থী ছিলেন ১৬ লাখ ৬ হাজার ৮৭৯ জন। মাদরাসা শিক্ষা বোর্ডের অধীনে দাখিল পরীক্ষা দিয়েছেন মোট ২ লাখ ৪২ হাজার ৩১৪ জন। কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের অধীনে এসএসসি (ভোকেশনাল) ও দাখিল (ভোকেশনাল) পরীক্ষায় অংশ নেন ১ লাখ ২৬ হাজার ৩৭৩ জন।

   

ফল পরিবর্তন হওয়া শিক্ষার্থীদের কলেজে ভর্তির বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম
ফল পরিবর্তন হওয়া শিক্ষার্থীদের কলেজে ভর্তির বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ

ফল পরিবর্তন হওয়া শিক্ষার্থীদের কলেজে ভর্তির বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ

  • Font increase
  • Font Decrease

এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফলে সন্তুষ্ট না হয়ে খাতা চ্যালেঞ্জ করে ৮ হাজার ৮৭৫ জন পরীক্ষার্থীর ফলে পরিবর্তন এসেছে। ফলে তারা এখন নিজেদের পছন্দ অনুযায়ী কাঙ্ক্ষিত কলেজে আবেদন করতে পারবেন।

বৃহস্পতিবার (১৩ জুন) একাদশ শ্রেণির ভর্তি সংক্রান্ত পোর্টালে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

আন্তঃশিক্ষাবোর্ড জানায়, কলেজ ভর্তির প্রথম ধাপের আবেদন যেহেতু চলমান, তাই পুনঃনিরীক্ষণে যাদের ফল পরিবর্তন হয়েছে, তাদের নতুন করে আবেদন করতে হবে না। আর যেসব শিক্ষার্থী আগের গ্রেডে বা নম্বরের কারণে কাঙ্ক্ষিত কলেজের জন্য আবেদন করতে পারেননি, কিন্তু পুনঃনিরীক্ষণে ফল পরিবর্তন হয়েছে এখন তারা কাঙ্ক্ষিত কলেজে আবেদন করতে পারবেন। এসব শিক্ষার্থী চাইলে আবেদন এডিট করে সেই সুযোগ নিতে পারবেন।

ফল পরিবর্তন হওয়া শিক্ষার্থীদের মধ্যে নতুন করে জিপিএ-৫ পেয়েছেন ১ হাজার ২২৪ জন। আর আগের ফলাফলে অনুত্তীর্ণ থাকা পরীক্ষার্থীদের মধ্যে জিপিএ-৫ পেয়েছেন ১০ জন। আগের ফলাফলে অনুত্তীর্ণ থাকা পরীক্ষার্থীদের মধ্যে খাতা চ্যালেঞ্জ করে পাস করেছেন ১ হাজার ১১০ শিক্ষার্থী।

২০২৪-২৫ শিক্ষাবর্ষের একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির প্রথম ধাপের আবেদন আজ বৃহস্পতিবার (১৩ জুন) শেষ হচ্ছে। ভর্তিচ্ছুকরা আজ রাত ১১টা ৫৯ মিনিট পর্যন্ত অনলাইনে আবেদন করতে পারবেন।

এবার কলেজে আবেদন ফি নির্ধারণ করা হয়েছে ১৫০ টাকা। শিক্ষার্থীরা সর্বনিম্ন পাঁচটি এবং সর্বোচ্চ দশটি কলেজে পছন্দ দিতে পারবেন। একজন শিক্ষার্থী যত কলেজে আবেদন করবেন, তার মধ্য থেকে তার মেধা, কোটা ও পছন্দক্রমের ভিত্তিতে একটি কলেজে তার অবস্থান নির্ধারণ করা হবে।

;

ঈদের ছুটিতে প্রয়োজনে অনলাইনে ক্লাস: এনসিটিবি



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

চলতি বছরের জুলাইয়ের প্রথম সপ্তাহে শুরু হচ্ছে নতুন শিক্ষাক্রমের ষষ্ঠ থেকে নবম শ্রেণির ষান্মাসিক মূল্যায়ন। এরই ধারাবাহিকতায় কতটুকু শিখন কার্যক্রমের ওপর এর মূল্যায়ন নেওয়া হবে সে বিষয়ে নির্দেশনা দিয়েছে জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যপুস্তক বোর্ড।

এনসিটিবি জানিয়েছে, ঈদের আগে যদি কোনো শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে নির্ধারিত অংশের শিখন কার্যক্রম শেষ না হয়, প্রয়োজনে ওই প্রতিষ্ঠান ছুটির মধ্যেও অনলাইনে ক্লাস নিবে।

রোববার (৯ জুন) মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদফতর (মাউশি) মাধ্যমিক বিভাগের সহকারী পরিচালক এস এম জিয়াউল হায়দার হেনরী স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে এই নির্দেশনা দেওয়া হয়।

এই নির্দেশনা বাস্তবায়নের উদ্দেশে দেশের সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে ইতোমধ্যে চিঠি দেওয়া হয়েছে।

এনসিটিবি’র নির্দেশনায় বলা হয়েছে, ২০২৪ শিক্ষাবর্ষের মাধ্যমিক পর্যায়ের সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ষষ্ঠ থেকে নবম শ্রেণির বিষয়ভিত্তিক ষান্মাসিক সামষ্টিক মূল্যায়নের সিলেবাস ও এই সংক্রান্ত নির্দেশনা মোতাবেক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে নির্দেশক্রমে অনুরোধ করা হলো।

এতে বলা হয়, সম্প্রতি সারাদেশ থেকে দ্বৈবচয়নের মাধ্যমে কিছু শিক্ষা প্রতিষ্ঠান নির্বাচন করেছে এনসিটিবি। এইসব প্রতিষ্ঠানে শিক্ষার্থীদের পাঠ্যপুস্তকের কতটুকু পড়ানো হয়েছে, সেই তথ্য নিয়ে একটি সিলেবাস প্রণয়ন করেছে। তাতে ষান্মাসিক মূল্যায়নে বইয়ের শুরু থেকে কত পৃষ্ঠা পর্যন্ত মূল্যায়নে অন্তর্ভুক্ত হবে, তা নির্ধারণ করা হয়েছে।

আগামী ১২ জুন বুধবার পর্যন্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ক্লাস চলবে। এরপর ঈদুল আজহার ছুটি শুরু হবে। ঈদের ছুটির আগেই সিলেবাসের অবশিষ্ট সিলেবাস সম্পন্ন করতে সামষ্টিক মূল্যায়নের জন্য বিকল্প উপায় অবলম্বন করতে নির্দেশনা দিয়েছে এনসিটিবি।

নির্দেশনায় আরও বলা হয়েছে, প্রয়োজনে অনলাইনে ক্লাস করাতে হবে। কোন দল গত কাজ এখন তথ্য সংগ্রহ ইত্যাদি কাজ থাকলে তা বিকল্প উপায়ে গত কাজের বিষয়ে দলগত কাজের বদলে একক কাজ, পরিবারের সদস্যদের থেকে তথ্য সংগ্রহ পর্যবেক্ষণের কাজটি বাড়ির আশেপাশের থেকে ভিডিও দেখে ডকুমেন্ট দেখে বা অন্য করা সাহায্যে করা যেতে পারে। কাজ শেষে সক্রিয় পরীক্ষণের বদলে একটি অ্যাসাইনমেন্ট জমা দিবে তার ধারণা আমাদের সময় ধারণ করে দেওয়ার বিষয়েও শিক্ষকদের দেওয়া হয়, এছাড়া অভিভাবকদের সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম গ্রুপ, মোবাইল গ্রুপে নির্দেশনা প্রদান করে শিক্ষার্থীদের বাড়িতে বসে করা কাজ শিক্ষকরা পর্যবেক্ষণ করবেন এবং ফিডব্যাক দেবেন।

তাছাড়া শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধের আগেই ছুটির মধ্যে শিক্ষার্থীদের করণীয় অভিজ্ঞতার ধাপগুলো সহজ ভাষায় বুঝিয়ে দিতেও শিক্ষকদের নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

;

এবার মাউশি থেকে বদলি হলেন সাবেক ভারপ্রাপ্ত ডিজি শাহেদুল



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও শিক্ষা বিভাগ (মাউশি) ভারপ্রাপ্ত মহাপরিচালক ও (কলেজ প্রশাসন) শাখার পরিচালক প্রফেসর মো. শাহেদুল খবির চৌধুরীকে এবার বদলি করা হয়েছে।

অর্থনীতি বিভাগের এই অধ্যাপককে রাজধানীর তেজগাঁও এলাকার সরকারি বিজ্ঞান কলেজের অধ্যক্ষ করা হয়েছে।

বুধবার (৫ জুন) শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সরকারি কলেজ ২ এর উপ-সচিব চৌধুরী সামিয়া ইয়াসমীন স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে এ বদলি করা হয়।

এর আগে, শাহেদুল খবিরের দুর্নীতি ও অনিয়ম নিয়ে সংবাদ প্রকাশ করেছিল বার্তা২৪.কম। মাউশির মহাপরিচালক পদ থেকে তাকে সরিয়ে দেওয়া হয়। তার পদে নিয়োগ পান অধ্যাপক নেহাল আহমেদ।

একই আদেশে মাউশির কলেজ ও প্রশাসন শাখার পরিচালক করা হয়েছে সরকারি বিজ্ঞান কলেজের বর্তমান অধ্যক্ষ এ বি এম রেজাউল করীমকে।

আদেশে আরও বলা হয়েছে, আগামী ১০ জুন তারিখের মধ্যে নতুন কর্মস্থলে যোগ দিতে বলা হয়েছে।

;

২৯ জুন থেকে ৪৪ দিন বন্ধ থাকবে কোচিং সেন্টার



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষা সুষ্ঠুভাবে সম্পন্নের লক্ষ্যে ২৯ জুন থেকে ১১ আগস্ট মোট ৪৪ দিন দেশের সব কোচিং সেন্টার বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়।

বুধবার (৫ জুন) সচিবালয়ে এ বিষয়ে আইন শৃঙ্খলা বিষয়ক এক সভা শেষে সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান শিক্ষামন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী।

এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষা ৩০ জুন থেকে শুরু হবে। গত ২ এপ্রিল চলতি বছরের এইচএসসি পরীক্ষার রুটিন প্রকাশ করা হয়।‌

সূচি অনুযায়ী, ২০২৪ সালের উচ্চমাধ্যমিক সার্টিফিকেট (এইচএসসি) ও সমমানের পরীক্ষা ৩০ জুন শুরু হবে। প্রথম দিন বাংলা প্রথমপত্র পরীক্ষা হবে। প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে শুরু হয়ে পরীক্ষা চলবে দুপুর ১টা পর্যন্ত। লিখিত পরীক্ষা শেষ হবে আগামী ১১ আগস্ট। আর ব্যবহারিক পরীক্ষা ১২ থেকে ২১ আগস্টের মধ্যে শেষ করতে হবে।

;