৪১ বছরেও দেশের শীর্ষ নায়ক শাকিব

বিনোদন ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
শাকিব খান ,ছবি: সংগৃহীত

শাকিব খান ,ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

ঘড়ির কাঁটা ১২টা স্পর্শ করতেই ৪১ বছরে পা রাখলেন ঢাকাই সিনেমার শীর্ষ নায়ক শাকিব খান। ১৯৭৯ সালের এইদিনে গোপালগঞ্জের মুকসুদপুর উপজেলার রাঘধীতে জন্মগ্রহণ করেন শাকিব। যদিও সে সময় শাকিব খান ছিলেন শুধুই মাসুদ রানা।

১৯৯৯ সালে সোহানুর রহমান সোহান পরিচালিত ‘অনন্ত ভালোবাসা’ সিনেমার মাধ্যমে ঢাকাই সিনেমায় পা রাখেন শাকিব। সে সময়ই নিজের নাম পাল্টে মাসুদ রানা থেকে শাকিব খান হয়ে উঠেন তিনি। নিজের এই নামের প্রসঙ্গে শাকিব খান জানিয়েছিলেন, সোহানুর রহমান সোহান ভাইসহ প্রথম সিনেমার ইউনিট বেশ কয়েকটি নাম পছন্দ করেছিলেন। সেখান থেকে আমিই শাকিব খান নামটি পছন্দ করেছিলাম।

ক্যারিয়ারের শুরুর দিকে শাকিব খান, ছবি: সংগৃহীত

নিজের প্রথম সিনেমা ‘অনন্ত ভালোবাসা’তে সাফল্য না পেলেও নজর কাড়েন শাকিব। এক বছরের মধ্যেই শাবনূর, পপি, পূর্ণিমা, মুনমুন তখনকার সেরা ৪ নায়িকার সঙ্গে জুটি বাঁধেন তিনি। সে সময়ের স্মৃতি স্মরণ করতে গিয়ে শাকিব জানিছেন, কাজপাগল ছিলাম, যখন যে চরিত্র পেয়েছি লুফে নিয়েছি। অনেক সিনেমায় সেকেন্ড হিরোর চরিত্র পেতাম, তবে না বলতাম না। কারণ আমি জানতাম, পর্দায় মুখ দেখাতে পারলেই নজর কাড়তে পারব।

নিজের ক্যারিয়ারে কয়টি সিনেমা করেছেন? এই তথ্যের সঠিক হিসাব শাকিরের কাছে না থাকলেও সেটা আনুমানিক দেড় শতাধিকের বেশি হবে বলে মনে করেন ঢাকাই সিনেমার বর্তমান সময়ের এই শীর্ষ নায়ক। তবে নিজের এমন অবস্থানের পেছনে যেসব সিনেমার অবদান আছে সেগুলোর তালিকায় শাকিব জানলেন, ‘অনন্ত ভালোবাসা’, ‘আমার স্বপ্ন তুমি’, ‘কোটি টাকার কাবিন’ বা ‘প্রিয়া আমার প্রিয়া’...

‘কোটি টাকার কাবিন’ সিনেমার পোস্টার , ছবি: সংগৃহীত

বয়স ৪১ হলেও ২৮ মে পর্দায় শাকিব খানের বয়স হবে ২১ বছর। অনেক চলচ্চিত্র বিশ্লেষক মনে করেন শাকিব খানের রাজত্ব শুরু হয় ২০০৭ সাল থেকে। তবে ২০০৮ সালে নায়ক মান্নার মৃত্যুর পর শাকিব খানকে আর পিছনে ফিরে তাকাতে হয়নি। জনপ্রিয় নায়ক থেকে হয়ে উঠেছেন ঢাকাই সিনেমার শীর্ষ নায়ক। শুধু দেশে নয়, দেশের বাইরেও কাজ করেছেন শাকিব। কলকাতায় শিকারী, নবাব, ভাইজান এলোরে’র মতো সিনেমায় কাজ করে সেখানেও জনপ্রিয়তা পেয়েছেন।

নায়কের বাইরে ২০১৪ সালে ‘হিরো দ্য সুপারস্টার’ সিনেমার মাধ্যমকে প্রযোজনায় নাম লেখান শাকিব। প্রথমে অনিয়মিত হলেও সম্প্রতি প্রযোজনায় নিয়মিত হয়েছেন তিনি।

শাকিব খান

প্রায় ২১ বছরের ক্যারিয়ারে ৪ বার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পাওয়া শাকিব খান নিজের অর্জন বলতে মনে করেন, দর্শকদের ভালোবাসা। তারাই আমাকে শাকিব খান বানিয়েছে।

প্রতিবছর বেশ বড় করে জন্মদিন পালন করলেও দেশের করোনা পরিস্থিতি বিবেচনায় এবারের জন্মদিনে কোন আয়োজন নেই শাকিব খানের। তিনি জানিয়েছেন, করোনা ভাইরাস নিয়ে বিশ্বজুড়ে আতঙ্ক চলছে। বাংলাদেশও কঠিন সময়ের মধ্য দিয়ে যাচ্ছে। আর এমন পরিস্থিতি ঘটা করে জন্মদিন পালন করা সাজেনা।

আপনার মতামত লিখুন :