কোন পণ্যের মেয়াদ কতদিন?

লাইফস্টাইল ডেস্ক, বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম
প্রতিটি পণ্যের মেয়াদ জানতে হবে, ছবি: সংগৃহীত

প্রতিটি পণ্যের মেয়াদ জানতে হবে, ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

দৈনন্দিন জীবনে ব্যবহৃত হয় বিভিন্ন ধরনের প্রসাধনী সামগ্রী।

নিত্য ব্যবহার্য এই সকল পণ্য ব্যবহারের ক্ষেত্রে আপনি কি খেয়াল রাখছেন, যা ব্যবহার করছেন তার মেয়াদ আছে কি না?

সকল পণ্যের একটি সীমিত মেয়াদ থাকে। মেয়াদগুলো খেয়াল রাখা বেশ প্রয়োজন, তা না হলে মেয়াদোত্তীর্ণ পণ্য ব্যবহারের পরে তা ত্বকে নানাবিধ সমস্যা করতে পারে। জেনে নিন কোন পণ্যটি কখন ফেলে দেয়া প্রয়োজন।

মেকআপ সামগ্রী

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jul/10/1562762995510.jpg

আপনি যদি নিয়মিত মেকআপ পণ্য ব্যবহার করেন, তাহলে অবশ্যই প্রতিটি পণ্যের উৎপাদন ও মেয়াদ উত্তীর্ণের ব্যাপারে বিশেষ খেয়াল রাখতে হবে। কিছু পণ্য পুরনো দেখালে তা ব্যবহার করা উচিৎ নয়। তবে কিছু পণ্য নতুনের মতো দেখালেও তার মেয়াদ উত্তীর্ণ হয়ে যায়। এমন ধরনের পণ্য একেবারেই ব্যবহার করা উচিৎ নয়। এতে ত্বকে দাগ, প্রদাহ ও ত্বকে জ্বালাপোড়ার মতো সমস্যা হতে পারে। তাই ব্যবহারের পূর্বে খেয়াল রাখুন ও মেয়াদোত্তীর্ণ হলে সেটা ফেলে দিন।

ফেস ক্লিনজার

বেশিরভাগ ক্লিনজারগুলোর ১ বছরের মতো মেয়াদ থাকে। কিন্তু যদি ফেস ক্লিনজার বা এর পানির মধ্যে দলা ও বিবর্ণতা দেখেন, তাহলে দ্রুত তা ফেলে দিতে হবে। নতুবা এই পণ্য ব্যবহারে ত্বকে নানান সমস্যা দেখা দিতে পারে।

মাইসেলার ওয়াটার

মেকআপ পরিষ্কারের জন্য মাইসেলার (Micellar) ওয়াটার ব্যবহার করা হয়। মাইসেলার ওয়াটার কটন প্যাডে ভিজিয়ে খুব সহজেই মেকআপ সহজে তোলা যায়। এটা মূলত মেকআপ রিমুভার হিসেবে কাজ করে। মাইসেলার ওয়াটারের বোতল খোলা রাখলে এর পানিতে ব্যাকটেরিয়া জমতে পারে এবং এর মেয়াদ ৬ মাসের বেশি হয়না, তাই ব্যবহারের পূর্বে খেয়াল রাখতে হবে।

ফেস টোনার

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jul/10/1562762777574.jpg

মুখ পরিষ্কার করে অনেকেই টোনার ব্যবহার করেন। এটি ত্বককে নরম ও ত্বকে টানটানভাব ধরে রাখে। মাইসেলার পানির মতোও টোনারের পানিতে খুব সহজেই ব্যাকটেরিয়া জমতে পারে। এটির মেয়াদ ৬ থেকে ১২ মাস থাকে। তবে এর মাঝে রঙ বিবর্ণ হয়ে গেলে তা ব্যবহার না করে ফেলে দিতে হবে।

ময়েশ্চারাইজার

ত্বকের আর্দ্রতা রক্ষার জন্য ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করা হয়। ত্বককে সুস্থ ও ত্বকের উজ্জ্বলতা ধরে রাখতে ন্যাচারাল অর্গানিক প্রোডাক্টের ময়েশ্চারাইজার বেশি ব্যবহার করা হয়। এগুলোর মেয়াদ থাকে ১ বছরের মতো। তবে কোনো রকম বাজে গন্ধ দেখা দিলে বা ক্রিমের টেক্সচার অন্যরকম মনে হলে সেটি ফেলে দিতে হবে। 

পারফিউম

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jul/10/1562762790879.jpg

বাইরে বের হওয়ার আগে পারফিউম ব্যবহার অনেকটাই যেন বাধ্যতামূলক। আবার অনেকেই পারফিউম সংগ্রহ করে সাজিয়ে রাখতে পছন্দ করেন। সেক্ষেত্রে জেনে রাখা প্রয়োজন, পারফিউম ৮ থেকে ১০ বছর ভালো থাকে। পরবর্তীতে এর সুগন্ধ পরিবর্তন হতে থাকে। আপনি এগুলো আপনার সেলফে রাখতে পারেন, তবে রোদ বা তাপ থেকে দূরে রাখুন। নইলে জলদি নষ্ট হয়ে যাবে এবং নষ্ট হয়ে গেলে তা ব্যবহার না করে ফেলে দিতে হবে।

আরও পড়ুন: সানস্ক্রিনের সাত-পাঁচ তথ্য

আরও পড়ুন: রিমুভার ছাড়াই ওঠানো যাবে নেইলপলিশ

আপনার মতামত লিখুন :