পাভেল আরিনের সংগীত পরিচালনায় জালাল খাঁর গান



বিনোদন ডেস্ক বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

ফিউশানের মধ্য দিয়ে গানের মৌলিক সুর ও ঢংয়ের কোন পরিবর্তন নয়, নতুন প্রজন্মের কাছে বাংলা সংগীতের অফুরন্ত ভাণ্ডার হতে অনন্য সব গান নতুন রূপে উপস্থাপনের প্রত্যয় নিয়ে আত্মপ্রকাশ করেছে ‘টাইম জোন লিভিং রুম সেশান’। ইউটিউবে প্রকাশিত হয়েছে এ সংগীত উদ্যোগের প্রথম সিজনের দ্বিতীয় গানটি।

সাধক কবি জালাল উদ্দিন খাঁর ‘আমায় যত দুঃখ দিলি বন্ধুরে’-গানটি প্রকাশিত হয়েছে ২৯ ফেব্রুয়ারি লিপ ডে-তে। পাভেল আরিনের সংগীত পরিচালনায় গানটিতে কণ্ঠ দিয়েছেন মাতাল কবি রাজ্জাক দেওয়ানের উত্তরসুরী শিল্পী কাজল দেওয়ান।

গানটি প্রসঙ্গে তিনি বলেন, “সাধক কবি জালাল উদ্দিন খাঁ অনেক ধরণের গান লিখেছেন। সুফিবাদের উপরও তার অনেক গান লেখা আছে। কিছু গান আমরা মঞ্চেও গেয়েছি। কিন্তু এবার যে গানটি গেয়েছি তা সত্যিই অন্যমাত্রার গান। কেন অন্যমাত্রার তা না শুনে বোঝা যাবে না। এমন আয়োজনে গাইতে পেরে খুবই ভালো লেগেছে। মন থেকে গানটা গেয়েছি।”

গানের কথাগুলো এমন-আমায় যত দুঃখ দিলি বন্ধুরে, আমি তোর প্রেমেরই দেওয়ানারে দেওয়ানা, এই মন জানে আর কেউ জানেনা।

পাভেল আরিন বলেন, “গানটির কথায় আমি দারুণভাবে আলোড়িত হয়েছি। জীবন দিয়ে অনুভব করেছি- তাই এটি বেছে নেয়া। শিল্পী কাজল দেওয়ান যখন গান করেন তখন তিনি এত প্রাণবন্ত এত সততার সাথে সুর উচ্চারণ করেন যে কারণে তার সাথে এ গানটি নিয়ে কাজ করতে আগ্রহী হয়েছি। তার অন্যতম শক্তির জায়গা গানে টান দিয়ে তিনি একটানা দীর্ঘক্ষণ ধরে রাখতে পারেন। এমন ক্ষমতা বাংলা গানে দুস্প্রাপ্য। এ গানেও তার একটি নমুনা শ্রোতারা পাবেন।”

পাভেল জানান, গানের ‘অরিজিনালিটি’ রক্ষা করে এ ধরনের কালজয়ী গানগুলোর শ্রতিমধুর নতুন রেকর্ডেড ভার্সন তৈরির লক্ষ্যেই কাজ করছে টাইম জোন লিভিং রুম সেশান। ভালোবাসা দিবসে রবীন্দ্রনাথের ‘ভালোবেসে সখী’-গানটির দারুণ শ্রোতাপ্রিয়তা অর্জনের পর এবার এলো জালাল খাঁর গানটি।

গানটিতে বাঁশি বাজিয়েছেন সোহাগ, ভায়োলিন- পলাশ দেওয়ান, ইয়ার হোসাইন। গিটারে ছিলেন হাসিবুল নিবিড়, মিছিল, এ এমএম নওয়াজ শরীফ, মেন্ডোলিন বাজিয়েছেন রায়হান পারভেজ আখন্দ। পিয়ানোতে ছিলেন আরিফুল হাসান শান্ত। পারকেশান- মো. সোহেল মিয়া, এসকে সাগর খান, দোতারা-আনন্দ শিকদার।

সংশ্লিষ্টদের সাথে কথা বলে জানা গেছে, এই আয়োজনের সহযোগী ও পৃষ্ঠপোষক হিসেবে আছে কল্লোল গ্রুপ অব কোম্পানিজের আওতাধীন ইন্টারন্যাশনাল ব্র্যান্ড ঘড়ির অথরাইজড রিটেইল চেইনশপ ব্র্যান্ড “টাইম জোন”। এবং ডিজিটাল স্ট্র্যাটেজি ও সার্বিক তত্ত্বাবধানে আছেন কল্লোল গ্রুপ অব কোম্পানিজের হেড অব ডিজিটাল মার্কেটিং রিফাত আহমেদ।

এই উদ্যোগের সম্পর্কে তিনি জানান; ‘লিভিং রুম সেশন’ মূলত ট্যালেন্টেড সংগীত পরিচালক পাভেল আরিনের ব্রেইন চাইল্ড। বাংলা গান ও সংস্কৃতির প্রতি দায়বদ্ধতা থেকে বাংলদেশের মিউজিককে বিশ্ব দরবারে পৌঁছে দেয়ার লক্ষ্যেই আমরা ‘টাইম জোন’ এই উদ্যোগের সাথে সম্পৃক্ত হয়েছি। এই উদ্যোগের সাথে থাকতে পেরে আমরা উচ্ছ্বসিত।

‘টাইম জোন লিভিং রুম সেশন’ এর পরবর্তি পরিকল্পনা সম্পর্কে রিফাত আহমেদ বলেন, এই সিজনের গানগুলোর প্রোডাকশন সম্পন্ন হওয়ার পরে এসে আমরা সম্পৃক্ত হয়েছি, এটি আমাদের মাত্র শুরু, আশা করছি পরবর্তি সিজনগুলোতে একদম গ্রাউন্ড লেভেল থেকে আমরা একসাথে কাজ করবো এবং আরও বড় পরিসরে আন্তর্জাতিক মানসম্পন্নতা গুরুত্ব দিয়ে ‘টাইম জোন লিভিং রুম সেশন’ কে নিয়ে আসা হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

‘‘টাইম জোন লিভিং রুম সেশন’’-সংগীত প্রযোজনা করেছে বাটার কমিউনিকেশন। গানগুলোর ভিডিও নির্মাণ করেছেন মারুফ রায়হান। পরিবেশনায়-মাশরুম এন্টারটেইনমেন্ট। ওয়াড্রোব পার্টনার- সেইলর ও পি আর পার্টনার হিসেবে সহযোগিতা করছে ইস্টিশন কমিউনিকেশনস।

নিয়মিত বিরতিতেই নতুন নতুন চমক নিয়ে প্রথম সিজনের গানগুলো প্রকাশিত হতে থাকবে। ‘‘টাইম জোন লিভিং রুম সেশন’’ ফেসবুক পেজ, ইউটিউব চ্যানেল এবং স্পটিফাই সহ বিভিন্ন স্ট্রিমিং প্ল্যাটফর্ম -এর মাধ্যমে সঙ্গীত প্রেমীরা এই গানগুলো উপভোগ করতে পারবেন।

   

ঈদ ইত্যাদিতে ইমরানের স্বপ্ন পূরণ, ফারিণের গায়িকা হিসাবে আত্মপ্রকাশ



বিনোদন প্রতিবেদক, বার্তা২৪.কম
ঈদ ইত্যাদিতে ফারিণ, তাহসান, ইরমান এবং বাপ্পা

ঈদ ইত্যাদিতে ফারিণ, তাহসান, ইরমান এবং বাপ্পা

  • Font increase
  • Font Decrease

ঈদ ইত্যাদির বিশেষ আয়োজনের একটি হচ্ছে সংগীতে চমক। যে কারণে ঈদ ইত্যাদির গানগুলির কথা, সুর, শিল্পী নির্বাচন ও চিত্রায়ণ বেশ ব্যতিক্রমী হয়। তারই ধারাবাহিকতায় এবারের ঈদের ইত্যাদিতেও শিল্পী নির্বাচনে রয়েছে বড় চমক।
এবারের অনুষ্ঠানে একটি গানে কণ্ঠ দিয়েছেন দুই ভুবনের দুই তারকা জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী তাহসান খান এবং অভিনেত্রী তাসনিয়া ফারিণ। পেশাদার সংগীতশিল্পী না হয়েও খুব চমৎকারভাবেই গানটি গেয়েছেন ফারিণ। উল্লেখ্য অভিনয়ে জনপ্রিয় ফারিণের টিভিতে গাওয়া এটিই প্রথম গান। বলা যায় এই গানটির মাধ্যমেই ফারিণের গায়িকা হিসেবে আত্মপ্রকাশ ঘটলো।

গায়িকা হিসেবে ফারিণের আত্মপ্রকাশ

এ প্রসঙ্গে ফারিণ বলেন, ‘ইত্যাদি ছোটবেলা থেকেই আমার প্রিয় অনুষ্ঠান। আমার প্রিয় অনুষ্ঠানে গান গাইতে পেরে খুবই ভালো লাগছে। গানটি ভালো হয়েছে। শোনার পর মনে হয়েছে, ভিন্ন ধরনের গান হয়েছে। আমার বিশ্বাস, সব শ্রেণির শ্রোতা-দর্শকের কাছে ভালো লাগবে এটি। আমাকে সুযোগ দেয়ার জন্য ইত্যাদির প্রতি কৃতজ্ঞ।’ গানটি নিয়ে তাহসান বলেন, ‘এ ধরনের গান আগে করিনি। খুবই উৎসবের আমেজ নিয়ে, আনন্দময় একটি গান হয়েছে। ফারিণও খুব ভালো গেয়েছে।’ গানটির কথা লিখেছেন কবির বকুল। সুর ও সংগীত করেছেন ইমরান মাহমুদুল। তাহসান ও ফারিণের এই দ্বৈত সংগীতটি দর্শকরা দারুণ উপভোগ করবেন।
এবারের অনুষ্ঠানে আর একটি গানে কণ্ঠ দিয়েছেন জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী বাপ্পা মজুমদার এবং তার সঙ্গে গেয়েছেন এ প্রজন্মের জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী ইমরান মাহমুদুল। উল্লেখ্য ‘গাড়ি চলে না, চলে না’ গানটি গেয়ে বাপ্পা মজুমদারের দলছুট দলের প্রথম টিভিতে আত্মপ্রকাশ ঘটে ইত্যাদির মাধ্যমে, আর এই প্রজন্মের জনপ্রিয় শিল্পী ইমরান মাহমুদুল এই প্রথম গাইলেন ইত্যাদিতে। এ প্রসঙ্গে ইমরান বলেন, ‘ইত্যাদি অনুষ্ঠানের জন্য প্রথম গান গাইতে পেরে খুব ভালো লাগছে। আমার কাছে ইত্যাদি একটি আবেগের নাম। তখনো বিনোদন জগতে গান গাইতে আসিনি। সেই ছোটবেলা থেকে ইত্যাদি দেখতাম।

ইত্যাদির মঞ্চে ইমরান

স্বপ্ন দেখতাম, একদিন ইত্যাদিতে গান করব। তখন ইত্যাদিতে একটা গান গাওয়ার সুযোগ পেলেই হিট হয়ে যেতেন শিল্পী। ভাবতাম, কোনো দিন আমি যদি ইত্যাদিতে একটা গান গাইতে পারতাম!’ এত দীর্ঘ সময় এসে ইত্যাদি অনুষ্ঠানে গান করার সুযোগে স্মৃতিকাতর হওয়ার কথা জানালেন ইমরান।

এই সংগীতশিল্পী আরও বলেন, ‘আমার জন্য এটি একটি বিরাট ব্যাপার। ইত্যাদি আমার জন্য একটি অনুপ্রেরণা, আবেগ। আজ ইত্যাদিতে গাইতে পেরে আমার স্বপ্ন পূরণ হলো।’ গানটির কথা লিখেছেন লিটন অধিকারী রিন্টু, সুর ও সংগীত করেছেন ইমরান মাহমুদুল।
গত ০২ মার্চ মিরপুর ইনডোর স্টেডিয়ামে ইত্যাদির বিশাল সেটে গান দুটির চিত্রধারণ করা হয়।
প্রতিবারের মত এবারও ঈদের বিশেষ ইত্যাদি একযোগে বিটিভি ও বিটিভি ওয়ার্ল্ডে প্রচারিত হবে ঈদের পরদিন রাত ০৮টার বাংলা সংবাদের পর। ইত্যাদি রচনা, পরিচালনা ও উপ্নারে করেছেন হানিফ সংকেত। নির্মাণ করেছে ফাগুন অডিও ভিশন। স্পন্সর করেছে কেয়া কসমেটিকস লিমিটেড।

;

জীবনের সবচেয়ে কঠিন সময়ে পার করছি: ঈদে ফারিয়ার পোস্ট



বিনোদন ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
নুসরাত  ফারিয়া

নুসরাত ফারিয়া

  • Font increase
  • Font Decrease

ঢালিউডের জনপ্রিয় অবিনেত্রী নুসরাত ফারিয়া মাহজার। অন্যান্য তারকাদের মতো ঈদ কাটেনি তার। প্রায় একমাস ধরে হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন তার বাবা মাজহারুল ইসলাম। ঈদের দিন বাবার কাছেই ছিলেন ফারিয়া। হাসপাতাল থেকেই ভক্তদের উদ্দেশ্যে ঈদের শুভেচ্ছা পাঠিয়েছেন নায়িকা। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে লম্বা পোস্ট দিয়েছেন তিনি। ফারিয়া লিখেছেন-

আমার আব্বুর হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার ২৮ দিন পূরণ হলো। দুটি স্ট্রোক এবং একটি অপারেশনের পরও, তিনি প্রতিদিন একাধিক স্বাস্থ্য সমস্যার সাথে লড়াই করছেন। অন্যান্য বিষয় বিবেচনা করলে আমি সম্ভবত আমার জীবনের সবচেয়ে কঠিন সময়ের মধ্য দিয়ে যাচ্ছি। এটি অত্যন্ত হতাশাজনক। যদিও কিছুই আপনার নিয়ন্ত্রণে নেই। একমাত্র উপায় হলো প্রার্থনা করা এবং আল্লাহর উপর বিশ্বাস রাখা...

সম্প্রতি, প্রেসের সাথে এক প্রেসমিটিংয়ে আমি কান্নায় ভেঙে পড়েছিলাম। বর্তমানে আমায় জীবনের সবচেয়ে বড় মানসিক অস্থিরতার সম্মুখীন হতে হচ্ছে। অনেককে মন্তব্য করতে শুনি, ‘আপনার বাবার এরকম শারীরিক অবস্থা। তার মধ্যেও আপনি কীভাবে ছবি পোস্ট করতে পারেন? ইভেন্টে যেতে পারেন বা এরকমভাবে পরিপাটি করে নিজেকে উপস্থাপন করতে পারেন?

কি করব বলুন? এটাই আমাদের পেশার কঠিন বাস্তবতা। কখনও কখনও আমরা আমাদের সোশ্যাল মিডিয়া এবং সামাজিক জীবনের সাথে এতটাই বিভ্রান্ত হয়ে পড়ি যে লোকেরা ভুলে যায়, আমরাও মানুষ। এটাই এখন আমার জীবন। মানুষ আমার দিকে যতই নুড়ি ছুঁড়ুক না কেন, হাসিমুখে মেনে নিয়ে আমার কাজ করে যেতে হবে। আমি এত মানুষের ভালবাসা, যত্ন এবং আশীর্বাদ পেয়ে অত্যন্ত খুশি। সকলকে ধন্যবাদ জানানোর ভাষা জানা নেই। এই কঠিন সময়ে যারা আমার পাশে এসেছিলেন তাদের সকলের প্রতি আমার কৃতজ্ঞতা। এই ঈদ আপনার জীবনে বয়ে আনুক শান্তি ও সমৃদ্ধি।

আমাদের পক্ষ থেকে আপনাকে ঈদ মোবারক।

পোস্টের নিচে ভক্তরা কমেন্ট করেছেন। অভিনেত্রীর বাবার সুস্থতা কামনা করেছেন অনেকেই।

বহুগুণ সম্পূর্ণা অভিনেত্রী নুসরাত ফারিয়া। যেমন অভিনয়ে পারদর্শী, তেমনে নাচ, মডেলিং এবং গানেও। শুধু তাই নয়, পর্দার সামনে কাজ শুরু করেছিলেন আরজে এবং টেলিভিশন উপস্থাপিকা হিসেবেই। কম বয়সে ছিলেন অত্যন্ত ভালো বিতার্কিক। দেশের বাইরেও একাধিকবার অভিনয় করেছেন তিনি। ভারতীয় বাংলার অভিনেতাদের সাথে যৌথ প্রযোজনার সিনেমা করে ওপার বাংলায়ও পরিচিতি লাভ করেছেন।  

;

টক্কর সব সিনেমার গানে



বিনোদন প্রতিবেদক, বার্তা২৪.কম
লিপস্টিক, রাজুকুমার এবং ওমর সিনেমার গান

লিপস্টিক, রাজুকুমার এবং ওমর সিনেমার গান

  • Font increase
  • Font Decrease

সময়ের সঙ্গে অনেকটাই হারিয়ে গেছে ঈদকে কেন্দ্র করে সংগীতশিল্পীদের ঘটা করে সিডি বা ক্যাসেট প্রকাশ। দর্শক এখন অন্তর্জালমুখী। সব ধরনের বিনোদন হাতের মুঠোয়। তবে নিরাশ হওয়ার সুযোগ নেই। বর্তমানের কাঁধে হাত রেখেই এবারের ঈদ উৎসবে প্রকাশ পেয়েছে বিভিন্ন, শিল্পী, সিনেমা ও ব্যান্ডের একক, দ্বৈত ও সম্মিলিত গান। এরই মধ্যে বেশ কিছু শিল্পী ও সংগীত আয়োজক তাদের নতুন গান প্রকাশ করেছেন কেউ শেষ উন্মুক্ত করার আগে শেষ প্রস্তুতি সারছেন- সব গানের হাঁড়ির খবর জানাচ্ছে মেলা। এবার ঈদে এককভাবে গান প্রকাশ করেছেন শাফিন আহমেদ। এই শিল্পীর নিজস্ব প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান ডাবল বেইজ থেকে ঈদ উপলক্ষে বৃহস্পতিবার প্রকাশ পেয়েছে প্রথম হিন্দি একক গান ‘রুবারু’। গানটির কথা লেখার পাশাপাশি সুর ও সংগীতায়োজন করেছেন আবু ইমরান।

রাজকুমার সিনেমার গান ‘বরবাদ’

এদিকে ঈদ আয়োজন নিয়ে আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে আইয়ুব বাচ্চুর অপ্রকাশিত গান। আইয়ুব বাচ্চু ফাউন্ডেশন এই ঈদে প্রকাশ করছে ‘ইনবক্স’ শিরোনামের একটি গান, যা দীর্ঘদিন শিল্পীর স্টুডিওতে রক্ষিত ছিল। নিয়াজ আহমেদ অংশুর লেখা এই গানের সুর ও সংগীতায়োজন করেছিলেন আইয়ুব বাচ্চু নিজেই। হাবিব ওয়াহিদ, হৃদয় খান, তানভীর তারেকসহ কয়েকজন সংগীতায়োজক ঈদে নিজের ও বিভিন্ন শিল্পীর গান প্রকাশের পরিকল্পনার কথা জানিয়েছেন। কণ্ঠশিল্পী ডলি সায়ন্তনী নিজস্ব চ্যানেলে প্রকাশ করছেন একক গান ‘আজও ভুলে যাইনি’। এনআই বুলবুলের কথায় এই গানের সুর ও সংগীত আয়োজন করেছেন রোহান রাজ। বাপ্পা মজুমদার এরই মধ্যে তার নিজস্ব চ্যানেলে প্রকাশ করেছেন ‘ব্যস্ত শহর’ শিরোনামের একটি একক গান। সৈয়দ আবদুল মালিকের লেখা এই গানের সুর ও সংগীতায়োজন করেছেন বাপ্পা নিজেই। আঁখি আলমগীরকে দেখা গেছে দ্বৈত গানের আয়োজনে ব্যস্ত থাকতে। তিনি দ্বৈত কণ্ঠে গেয়েছেন সুরকার ও শিল্পী শওকত আলী ইমনের সঙ্গে। শিরোনাম ‘কফির পেয়ালা’। ধ্রুব মিউজিক স্টেশন থেকে প্রকাশিত এই গানের কথা লিখেছেন আশিক মাহমুদ। আকাশ মাহমুদের সুরে গানের সংগীত আয়োজন করেছেন শওকত আলী ইমন নিজেই। শিল্পী ও সংগীত আয়োজক ইমরান মাহমুদুল ঘোষণা দিয়েছেন ঈদের পঞ্চম দিনে প্রকাশ করবেন নতুন গান। শিরোনাম ‘ভালোবাসি বলে যাও’। আসিফ ইকবালের লেখা এই গানে সুর ও সংগীত আয়োজন করেছেন ইমরান নিজেই। তার সঙ্গে সহশিল্পী হিসেবে কণ্ঠ দিয়েছেন মারুফা তৃষা। পিছিয়ে নেই ক্লোজআপ ওয়ান তারকা সালমাও । অলক কান্তি বিশ্বাসের লেখা এর সুর ও করেছেন এম এ রহমানের সংগীত আয়োজনে সালমার ঈদ রিলিজ ‘মনের বৃন্দাবন’ শিরোনামের নতুন গান। অন্যদিকে শিল্পী কর্ণিয়া আসছেন নতুন স্বাদের একক গান ‘ঢাকার জ্যাম’ নিয়ে।

লিপস্টিক সিনেমার গানের দৃশ্যে পূজা চেরী

এছাড়া আলোচনায় আছে সিনেমার গানগুলোও। এরই মধ্যে প্রকাশ পেয়েছে প্রিন্স মাহমুদের কথা,সুর ও নির্দেশনায় ‘রাজকুমার’ সিনেমার জন্য তৈরি নতুন গান ‘বরবাদ’। এই গানের প্লে-ব্যাক শিল্পী আলিফ। এছাড়া বালাম ও কোনালের গাওয়া ‘রাজকুমার’ সিনেমার টাইটেল গানটিও দর্শক-শ্রোতার মাঝে সাড়া ফেলছে। ‘রাজকুমার গানের কথা লিখেছেন গীতিকবি আসিফ ইকবাল। সুর ও সংগীত আয়োজন করেছেন আকাশ।
এর পাশাপাশি ‘সোনার চর’ সিনেমায় বেলাল খান ও কনার গাওয়া ‘আসমানে ঘর বাইনছে তারা’, ‘লিপস্টিক’ সিনেমায় স্নেহা ভট্টাচার্যের গাওয়া ‘বেসামাল’ গানগুলো অনেকের প্রিয় তালিকায় জায়গা করে নিয়েছে।

 

;

ঈদের আড্ডায় এক ঝাঁক তারকা



বিনোদন প্রতিবেদক, বার্তা২৪.কম
বিটিভি’র ঈদ আড্ডা

বিটিভি’র ঈদ আড্ডা

  • Font increase
  • Font Decrease

ঈদুল ফিতর উপলক্ষে বাংলাদেশ টেলিভিশনে (বিটিভি) প্রচারিত হবে চার পর্বের আড্ডার অনুষ্ঠান ‘ঈদ আড্ডা’। মাহফুজার রহমানের প্রযোজনায় যেখানে অংশ নিবেন রাজনৈতিক অঙ্গনের জনপ্রিয় ব্যক্তিত্বদের পাশাপাশি শোবিজের জনপ্রিয় তারকারা। ঈদের দিন (১১ এপ্রিল)) সন্ধ্যা ৬টা ২০ মিনিটে প্রচারিত হয়েছে রাজনীতিবিদদের নিয়ে আড্ডা। জুলিয়া আলমের উপস্থাপনায় অনুষ্ঠানটিতে অংশ নিয়েছিলেন স্থানীয় সরকার উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী আব্দুল ওয়াদুদ দারা ও তার সহধর্মিনী এবং বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন, এমপি ও তার সহধর্মিনী।

চলচ্চিত্র তারকা মিশা সওদাগর, অপু বিশ্বাস, নীরব ও দিঘী

ঈদের দিন দুপুর ১টা ৩০ মিনিটে ঈদ আড্ডা অনুষ্ঠানে ফেরদৌস বাপ্পীর সঙ্গে আড্ডা দিয়েছিলেন চলচ্চিত্র তারকা মিশা সওদাগর, অপু বিশ্বাস, নীরব ও দিঘী।

ঈদের ২য় দিন দুপুর ১টা ৩০ মিনিটে মৌসুমী মৌয়ের উপস্থাপনায় ঈদ আড্ডায় অংশ নিবেন নাট্যশিল্পী আজাদ আবুল কালাম, চিত্রলেখা গুহ, তুষার খান ও আনিকা কবির শখ।

ঈদের ৩য় দিন  সন্ধ্যা ৬টা ২০ মিনিটে অভিনেতা সাজু খাদেমের সঙ্গে আড্ডা দিবেন নাট্য দম্পতি আজিজুল হাকিম ও জিনাত হাকিম এবং এফ এস নাঈম ও নাদিয়া আহমেদ।

এবং চার তারকা শিল্পী গাইবেন বিটিভির গান চিরদিনে।

গান চিরদিনে কণ্ঠশিল্পী বাবু এবং লুইপা

জনপ্রিয় অভিনেতা ও কণ্ঠশিল্পী ফজলুর রহমান বাবু, বেলাল খান, জিনিয়া জাফরিন লুইপা ও আতিয়া আনিসার অংশগ্রহণে ধারণ করা হয়েছে বাংলাদেশ টেলিভিশনের গান চিরদিন অনুষ্ঠানের বিশেষ পর্ব। দেশ সেরা এই শিল্পীরা অনুষ্ঠানে প্রত্যেকেই দুইটি করে জনপ্রিয় গান গেয়েছেন। থাকছে উপস্থাপিকা সোনিয়া রিফাতের সাথে মজার আলাপচারিতা। আনিসুর রহমান তনুর সংগীত পরিচালনায় এবং সাদিকুল ইসলাম নিয়োগী পন্নী‘র প্রযোজনায় অনুষ্ঠানটি ঈদের তৃতীয় দিন সকাল ১১ টায় বাংলাদেশ টেলিভিশনে প্রচারিত হবে।

 

 

 

 

;