নিউজিল্যান্ডে আগ্নেয়গিরির অগ্ন্যুৎপাতে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ১৬

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
দ্বীপটিতে পৌঁছেছেন উদ্ধার কর্মীরা, ছবি: সংগৃহীত

দ্বীপটিতে পৌঁছেছেন উদ্ধার কর্মীরা, ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

নিউজিল্যান্ডে আগ্নেয়গিরির অগ্ন্যুৎপাতে দগ্ধ আরো একজনের মৃত্যু হয়েছে। অস্ট্রেলিয়ার একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা গেছেন।

এ নিয়ে এ ঘটনায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ১৬-তে দাঁড়িয়েছে বলে জানিয়েছে দেশটির পুলিশ। 

এদিকে রোববার (১৫ ডিসেম্বর) উদ্ধার কর্মীরা ওই আইল্যান্ডে গিয়ে উদ্ধার তৎপরতা চালিয়েও নিহতদের মধ্যে দু’জনের মরদেহ খুঁজে পাননি।

সূত্রটি জানায়, সোমবার (৯ ডিসেম্বর) স্থানীয় সময় ১৪টা ১১ মিনিটের দিকে হোয়াইট আইল্যান্ডে ঘটা ওই অগ্ন্যুৎপাতে দগ্ধ ২০ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। তাদের নিবিড় পর্যবেক্ষণে রেখে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

এদিকে, সোমবার অগ্ন্যুৎপাত শুরু হওয়ার আগে পর্যটকদের হোয়াইট আইল্যান্ড আগ্নেয়গিরির আশপাশে হাঁটতে দেখা গেছে বলে বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

ঠিক কতজন পর্যটক ওই এলাকায় ছিল, তা নির্দিষ্ট করে না জানালেও পুলিশের ধারণা ছিল, অগ্ন্যুৎপাতের সময় দ্বীপটিতে অন্তত ৫০ জন ছিল। ঘটনার পর ২৩ জনকে উদ্ধার করা গেছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

ওই দিন পুলিশের ভাষ্য মতে, বিমান পাঠিয়ে সেখানে জীবন্ত কোনো ব্যক্তির নিশানাও খুঁজে পাওয়া যায়নি। ফের অগ্ন্যুৎপাতের আশঙ্কায় উদ্ধার কর্মীরাও দ্বীপটিতে যেতে পারছিলেন না।

অগ্ন্যুৎপাতের ঘটনায় হতাহতের পরিবারের সদস্যদের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জেসিন্দা আর্ডেন।

হোয়াইট আইল্যান্ড নিউজিল্যান্ডের সবচেয়ে সক্রিয় একটি আগ্নেয়গিরি। এটি ওয়াকারি নামেও পরিচিত। যে কোনো সময় এ সক্রিয় আগ্নেয়গিরির অগ্নুৎপাত ঘটার আশঙ্কা থাকা সত্ত্বেও বিভিন্ন বেসরকারি পর্যটন কোম্পানি পর্যটকদের ওই এলাকায় প্রায় প্রতিদিন ঘোরাতে নিয়ে যায়।