ঘরেই তৈরি করা যাবে প্রাকৃতিক ফেস ক্লিনজার

ফাওজিয়া ফারহাত অনীকা, স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, লাইফস্টাইল
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

শীতকালে শুধু ত্বক নয়, শুষ্ক হয়ে ওঠে আবহাওয়াও।

যে কারণে বাইরে ধুলাবালির মাত্রা বেড়ে যায় অনেক বেশি। প্রয়োজনীয় কাজে ঘরের বাইরে বেরুলেই মুখে ধুলাবালির আস্তরণে ঢেকে যায় যেন। এমন শুষ্ক সময়ে ত্বককে পরিষ্কার ও সুস্থ রাখতে ভালো ও গুণগত মানসম্পন্ন ক্লিনজারের প্রয়োজন।

কেমিক্যালযুক্ত ক্লিনজার ব্যবহারের পরিবর্তে প্রাকৃতিক উপাদানের ক্লিনজার ব্যবহার করা হবে সবচেয়ে উৎকৃষ্ট পছন্দ।

অ্যাপল সাইডার ভিনেগারের ফেস ক্লিনজার

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2018/Nov/22/1542871443650.jpg

অ্যান্টি-ভাইরাল ও অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল উপাদান অ্যাপল সাইডার ভিনেগার ত্বকের pH এর মাত্রা নিয়ন্ত্রণ করে এবং বন্ধ হওয়া রোমকূপ থেকে ময়লা বের হতে সাহায্য করে। অ্যাপল সাইডার ভিনেগারের pH হচ্ছে ৫.৫, যা মানুষের ত্বকে স্বাভাবিক pH এর মাত্রার কাছাকাছি। ফলে এসিভি ব্যবহারে ত্বকের ব্রণ ও অ্যাকনে হবার সম্ভবনা কমে যায়।

তবে অবশ্যই এসিভি সরাসরি ত্বকে ব্যবহার করা যাবে না। মুখের ত্বকে ব্যবহারের জন্য এক কাপ পানিতে এক চা চামচ এসিভি ভালভাবে মিশিয়ে এরপর পরিষ্কার কাপড় কিংবা তুলায় মিশিয়ে ব্যবহার করতে হবে। এসিভি ব্যবহারের পর মুখ সাধারণ পানিতে ধুয়ে ময়েশ্চারাইজার লাগিয়ে নিতে হবে।

দইয়ের ফেস ক্লিনজার

পর্যাপ্ত প্রোটিন ও ল্যাকটিক অ্যাসিড সমৃদ্ধ দই প্রাকৃতিক ক্লিনজার হিসেবে আরেকটি চমৎকার উপাদান। দইয়ে থাকা উপকারি উপাদান একসাথে কাজ করার ফলে, ত্বকের এক্সফলিয়েশনে খুব ভালো কাজ করে। বিশেষত ল্যাকটিক অ্যাসিড ত্বকের মরা চামড়া দূর করতে ও প্রোটিন রোমকূপকে ছোট করতে সাহায্য করে।

অ্যাপল সাইডারের মতো দই কোন কিছু সঙ্গে মিশিয়ে ব্যবহার করার প্রয়োজন নেই। সাধারণ টকদই হাতের আঙ্গুলের সাহায্যে মুখের ত্বকে ম্যাসাজ করে ৫-১০ মিনিট রেখে দিতে হবে। এরপর কুসুম গরম পানিতে মুখ ধুয়ে ভালো কোন ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করতে হবে।

আঙ্গুরের ফেস ক্লিনজার

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2018/Nov/22/1542871472186.jpeg

গবেষণা থেকে দেখা গেছে, আঙ্গুরে থাকা ফাইটোনিউট্রিয়েন্ট সমূহ ত্বকের উপরে বিশেষ একটি স্তর তৈরি করে। যা ত্বকের উপর ক্ষতিকর ইউভি রশ্মির প্রভাব তৈরিতে বাধাদান করে। এছাড়া আঙ্গুরে থাকা ভিটামিন-সি ত্বকের কোলাজেন তৈরিতে ভূমিকা রাখে এবং প্রোটিন ত্বকের নমনীয়তা বৃদ্ধি করে ত্বককে সুস্থ রাখে।

ক্লিনজার হিসেবে আঙ্গুর ব্যবহারের জন্য আঙ্গুরের খোসা ও বিচি ছাড়িয়ে হাত দিয়ে পিষে নিতে হবে। এর সঙ্গে এক চা চামচ মধু যোগ করে পেস্ট তৈরি করে মুখে ম্যাসাজ করে ১০ মিনিটের মতো রেখে দিতে হবে। এরপর মুখ ধুয়ে ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করতে হবে।

আরও পড়ুন: আর্দ্রতা হারাচ্ছে ত্বক?

আরও পড়ুন: ত্বকের যত্নে কেন দুধ ব্যবহার করবেন?

আপনার মতামত লিখুন :