মানসিক সুস্বাস্থ্যে প্রয়োজন ‘পরিমিত’ শরীরচর্চা

শরীরচর্চা প্রয়োজন মানসিক সুস্বাস্থ্যের জন্য।

শরীরের সাথে মনের সংযোগের বিষয়টি নতুন কিছু নয়।

তেমনভাবে এটাও নতুন কোন তথ্য নয়, শরীর সুস্থ তো মন সুস্থ কিংবা মন ভালো তো শরীর ভালো। যে কারণে শরীরের প্রতি যত্নশীল হবার জন্য বলা হয়ে থাকে সবসময়। স্বাস্থ্যকর ও নিয়মিত খাবার খাওয়া ও শরীরচর্চার অভ্যাস শরীরকে তো বটেই, মনকেও সুস্থ রাখতে সাহায্য করে।

নিয়মিত শরীরচর্চা মনের অবসাদ, বিষণ্ণতা ও ক্লান্তিভাব দূর করে। হুটহাট মন খারাপ হওয়া কিংবা হতাশাবোধ মাথাচাড়া দিয়ে ওঠার হাত থেকে নিজেকে রক্ষা করতে শরীরচর্চার মতো এমন চমৎকার বিকল্প উপায় দ্বিতীয়টি আর নেই!

আরো পড়ুন: হতাশাকে বিদায় জানান সহজেই

তবে যে তথ্যটি সম্পর্কে আমাদের সঠিক ধারণা নেই তা হলো, কতটুক সময় নিয়ে শরীরচর্চা করা উপকারী। অনেকেই ভাবেন, যতবেশি সময় নিয়ে শরীরচর্চা করা যাবে, ততই উপকার। যা একেবারেই ভ্রান্ত ও ভুল ধারণা! সবকিছুর জন্যই প্রয়োজন সঠিক পরিমাণ।

প্রতি সপ্তাহে তিন-পাঁচ দিন ৪৫ মিনিটের শরীরচর্চা মানসিক সমস্যাকে কমাতে সাহায্য করে। এর বেশি সময় নিয়ে শরীরচর্চা খুব একটা উপকারী নয়- ‘দ্যা ল্যানচেট সাইকিয়াট্রি জার্নাল’ এ প্রকাশিত আমেরিকার বৃহৎ একটি গবেষণা এমন তথ্য জানায়।

এক মাসে প্রায় ১.২ মিলিয়ন মানুষের প্রতিদিনের কার্যকলাপের উপর মনিটর করে তারা এমন তথ্য প্রকাশ করেছে। দেখা গেছে শরীরচর্চা যারা করেছেন, যারা শরীরচর্চা করেননি তাদের চেয়ে ১.৫ ভাগ কম খারাপ দিন কাটিয়েছে।

মূলত টিম স্পোর্টস, সাইক্লিং ও অ্যারোবিক্স সবচেয়ে ভালো ইতিবাচক প্রভাব তৈরি করে। শুধু এই তিন প্রকার শরীরচর্চাই নয়, সকল ধরণের শরীরচর্চাই মানুষের মানসিক স্বাস্থ্যের জন্য উপকারী। এক্ষেত্রে বয়স কিংবা লিঙ্গ মূখ্য বিষয় নয়।

আরো পড়ুন: আর নয় জ্যামে বসে সময় নষ্ট!

ইয়েল ইউনিভার্সিটির সাইকিয়াট্রি বিভাগের অ্যাসিস্টেন্ট প্রফেসর ও গবেষণাটির অথর ডঃ অ্যাডাম চেকরাউড বলেন, ‘আগে মানুষ বিশ্বাস করতো যতবেশি শরিরচর্চা করা হবে, মানসিক স্বাস্থ্যের জন্য ততই ভালো। তবে আমাদের গবেষণা থেকে দেখা গেছে সেটা সঠিক নয়। মাসে ২৩ বারের বেশি শরীরচর্চা করা কিংবা ৯০ মিনিটের বেশি সময় নেওয়া মানসিক স্বাস্থ্যের উপর নেতিবাচক প্রভাব ফেলে দেয়’।

তবে এমন ধরণের তথ্যের বিপক্ষেও কথা বলেছেন অনেকেই। মানসিক স্বাস্থ্য ও শরীরচর্চার বিষয়টি হিসাব করে একদম সঠিক কোন ফলাফলে আসা সম্ভব নয় বলে মনে করেন অনেকেই।

যত যাই হোক, এটা তো সত্য যে শরীরচর্চা শরীর ও মনের জন্য সমানভাবেই উপকারী ও প্রয়োজনীয় বিষয়। মনের সুসাস্থ্যের সঙ্গে শরীরচর্চা হৃদরোগ ও ডায়বেটিসের সমস্যাও দূরে রাখে। যে কারণে চেষ্টা করতে হবে প্রতি সপ্তাহে ৩-৫ দিন ৩০-৬০ মিনিটের জন্য পছন্দসই শরীরচর্চা করার।

লাইফস্টাইল এর আরও খবর

//election count down //sticky sidebar