ঘরে বসেই মিলছে স্বাস্থ্যসেবা



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, ময়মনসিংহ
ঘরে বসেই মিলছে স্বাস্থ্যসেবা

ঘরে বসেই মিলছে স্বাস্থ্যসেবা

  • Font increase
  • Font Decrease

করোনাভাইরাস প্রতিরোধে উদ্ভুত পরিস্থিতিতে গৃহবন্দী হয়ে পড়েছেন সকলেই। এই অবস্থায় ঘরে বসে মানুষ যাতে প্রাথমিক স্বাস্থ্যসেবা পেতে পারেন সেজন্য টেলিমেডিসিন সেবা দেওয়ার উদ্যোগ নিয়েছে ময়মনসিংহের রক্তদাতাদের সংগঠন ব্রহ্মপুত্র ব্লাড কল্যাণ সোসাইটি। আর তাদের এ উদ্যোগে সাড়া দিয়ে এ সেবা দিচ্ছেন ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ৩০ জন চিকিৎসক।

সোমবার (৩০ মার্চ) থেকে শুরু হয়েছে এ টেলিমেডিসিন সেবা।

ব্রহ্মপুত্র ব্লাড কল্যাণ সোসাইটির সভাপতি মমিনুর রহমান প্লাবন বার্তা২৪.কম-কে বলেন, প্রতিদিন সকাল ৮টা থেকে রাত ২টা পর্যন্ত মিলবে এ সেবা। আমরা নির্দিষ্ট সময়, চিকিৎসকদের নাম ও মোবাইল নম্বর উল্লেখ করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে প্রচারণা চালাচ্ছি। যাতে এ সংকটময় মুহূর্তে সাধারণ মানুষ ঘরে বসেই তাৎক্ষণিক প্রয়োজনীয় চিকিৎসা সেবা পান।

সিরাজগঞ্জে পানিতে ডুবে দুই শিশুর মৃত্যু



ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, সিরাজগঞ্জ
প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

  • Font increase
  • Font Decrease

 

সিরাজগঞ্জের সদর উপজেলায় পুকুরের পানিতে ডুবে তামিম (৪) ও মোস্তাকিম (৬) নামের দুই শিশু মৃত্যু হয়েছে।

শুক্রবার (২০ মে) দুপুরে উপজেলার খোকশাবাড়ি ইউনিয়নের চর খোকশাবাড়ি গ্রামে এই ঘটনা ঘটে।

নিহত তামিম চর খোকশাবাড়ি গ্রামের কোরবান আলীর ছেলে ও মোস্তাকিম একই গ্রামের মোহাম্মদ আলীর ছেলে।

স্থানীয় সুত্রে জানা যায়, বাড়ির বাইরে খেলতে যায় শিশু তামিম ও মোস্তাকিম। বেশ কিছুক্ষণ পর শিশু দুটিকে দেখতে না পেয়ে খোঁজাখুঁজি শুরু করেন তার পরিবারের সদস্যরা। একপর্যায়ে বাড়ির পাশের একটি পুকুরে শিশু দুটিকে ভাসতে দেখেন স্থানীয়রা। পরে পরিবারের লোকজন শিশুদেরকে অচেতন অবস্থায় উদ্ধার করে সিরাজগঞ্জ বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদের মৃত ঘোষণা করেন।

সিরাজগঞ্জ বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতালে জরুরি বিভাগের ডা. শামীমুর রহমান জানান, পানিতে পড়া দুই শিশুকে হাসপাতালে আনার আগেই তাদের মৃত্যু হয়েছে।

;

অচিরেই সংলাপে বসার আহ্বান জানাবো: সিইসি



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, সাভার (ঢাকা)
ছবি: বার্তা২৪.কম

ছবি: বার্তা২৪.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

প্রধান নির্বাচন কমিশনার কাজী হাবিবুল আউয়াল বলেছেন, অচিরেই বিএনপিসহ সকল রাজনৈতিক দলগুলোকে আহ্বান জানাবো সংলাপে বা আলোচনায় বসার জন্য। ঠিক করে বলতে পারছি না, হয়ত দুই-এক মাসের মধ্যেই আমরা আলোচনায় বসতে পারি।

শুক্রবার (২০ মে) সকাল ১০টায় সাভার উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে ভোটার তালিকা হালনাগাদ কার্যক্রমের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়ে এসব কথা বলেন তিনি। উদ্বোধনী আয়োজন করেন ঢাকা জেলা নির্বাচন অফিস ও সাভার উপজেলা প্রশাসন। এর আগে আলোচনা সভায় তিনি ভোটার তালিকা হালনাগাদ কার্যক্রমের শুভ উদ্বোধন ঘোষণা করেন।

সাংবাদিকদের প্রশ্নের মুখে প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কাজী হাবিবুল আউয়াল বলেন, 'আমরা যদি ক্ষমতায় যেতে পারি' কথাটা রাজনীতিবিদরা প্রায়ই বলে থাকেন। আমি অনেক রাজনীতিবিদকে বলেছিলাম, কথাটা এভাবে না বলে আপনি তো এভাবে বলতে পারেন যে 'আমরা যদি সরকারের দায়িত্বে যেতে পারি'। আগের কথাটার মধ্যে একটা অহংবোধ আছে- ক্ষমতায় গিয়ে আমরা দেখাবো বা দেশ চালাবো। ক্ষমতা নয়, এটা দায়িত্ব। ক্ষমতা বলে কোনো কিছু নেই। আমরা যদি ক্ষমতাকে দায়িত্বের অর্থে বুঝতে ও পালন করতে পারি তাহলে আমাদের দায়িত্ববোধ ও সাংস্কৃতিক মনস্তত্ত্ব আরো উজ্জীবিত হবে।

তিনি আরও বলেন, ইভিএমের সক্ষমতা বৃদ্ধির জন্য আমরা কাজ করে যাচ্ছি। ইভিএমের সক্ষমতা কতটুকু দরকার, আরো কী কী করা যায়, তা নিয়ে আমরা আরো কিছু সভা করবো। এরপরে আমরা ইভিএমের সক্ষমতা বৃদ্ধির জন্য কাজ করবো। আমি একা কোনো সিদ্ধান্ত নিতে পারবো না। ৩০০ আসনে সক্ষমতা সম্ভব কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, এখন বলা সম্ভব নয়। নির্বাচন কমিশনকে সর্বোচ্চ স্বাধীনতা দেওয়া হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি।

সিইসি বলেন, আমরা নতুন একটি কমিশন। আমাদের আন্তরিক প্রত্যাশা যে, একটি অংশগ্রহণমূলক ও প্রতিদ্বন্দ্বিতামূলক নির্বাচন অনুষ্ঠিত হোক। গণতন্ত্র বিকশিত হোক। ভোটের মাধ্যমে একটি দায়িত্বশীল পার্লামেন্ট গঠিত হোক। পার্লামেন্টে তর্ক-বির্তকের মাধ্যমে জনগণের অধিকার সংরক্ষিত হোক।

এ আয়োজনে সভাপতিত্ব করেন নির্বাচন কমিশনের সচিব মো. হুমায়ুন কবীর খোন্দকার। তিনি বলেন, ভোটার তালিকা হালনাগাদ আজকে শুরু হয়েছে যা বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশনের সাংবিধানিক ম্যান্ডেট। ভোটার তালিকা প্রণয়ন এটি অন্যতম মূল কাজ। ভোটার তালিকা প্রণয়নের জন্য আমরা তিন ধরনের তথ্য গ্রহণ করছি। ভোটার তালিকা প্রণয়ন হবে ২০২৩ সালের ২ মার্চ। এই ভোটার তালিকা দিয়েই কিন্তু আগামী জাতীয় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। তাই এই ভোটার তালিকা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। সরকারের এক্সিকিউটিভ যারা আছেন, তারা নির্বাচন কমিশনকে সহযোগিতা করতে বাধ্য। আপনারা অত্যন্ত গুরুত্ব সহকারে ভোটার তালিকা প্রণয়নের কাজ করবেন। ট্রান্সজেন্ডার ও নিষিদ্ধ পল্লীর মা-বোনদেরও কিন্তু এই তালিকায় আনার জন্য আমরা নির্দেশনা দিয়েছি। কীভাবে নিয়ে আসবেন সে বিষয়ে আমরা প্রশিক্ষণও দিয়েছি।

তিনি আরও বলেন, সাভারে প্রায় ৩৮০ জন তথ্যসংগ্রহকারী, ৭৬ জন সুপারভাইজার, সরকারি কর্মকর্তা ও রেজিস্ট্রেশন অফিসার আছেন। সংবিধানে বলা আছে, ভোটার তালিকা হালনাগাদ করতে বাড়ি বাড়ি যেতে হবে। আমরা মনে করি, এই কাজটি সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন হবে এবং আমরা জাতিকে একটি সুন্দর পরিচ্ছন্ন ভোটার তালিকা উপহার দিতে পারবো।

এসময় আরও উপস্থিত ছিলেন ঢাকা জেলা প্রশাসক (ডিসি) মো. শহীদুল ইসলাম, ঢাকা জেলা পুলিশ সুপার (এসপি) মো. মারুফ হোসেন সরদার, ঢাকা জেলা সিনিয়র নির্বাচন কর্মকর্তা মো. মনির হোসেন, সাভার উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মঞ্জুরুল আলম রাজীব, সাভার পৌর মেয়র আলহাজ্ব আব্দুল গণি, সাভার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মাজহারুল ইসলাম সহ স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা।

;

সড়কের বেহাল দশা, মেরামতের কেউ নেই!



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, সাভার (ঢাকা)
ছবি: বার্তা২৪.কম

ছবি: বার্তা২৪.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

সংস্কারের অভাবে চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে সাভার উপজেলার বহু গুরুত্বপূর্ণ রাস্তা। এরমধ্যে সবচেয়ে ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে বিশমাইল জিরাবো ও বাইপাইল আব্দুল্লাহপুর মহাসড়ক। প্রতিনিয়ত এই দুটি সড়কে দুর্ঘটনার পাশাপাশি অনেক মানুষ পঙ্গুত্ব বরণ করছে। দুই দশক ধরে এই দুটি সড়কের বেহাল দশা হলেও মেরামত করার যেন কেউ নেই। গার্মেন্টস শ্রমিকদের পাশাপাশি বিভিন্ন কারখানার বায়ারসহ সাধারণ মানুষ পড়েছে চরম দুর্ভোগে। কাঁদা পানিতে হাঁটার কারণে বিভিন্ন বয়সী মানুষের জামা কাপড় নষ্ট হওয়ার পাশাপাশি বিভিন্ন রোগেও আক্রান্ত হচ্ছে।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, ওই দুটি সড়কের পাশাপাশি উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নের সড়কে পিচঢালাই উঠে বড় বড় গর্তের সৃষ্টি হয়েছে। কোনো কোনো সড়ক কাঁদা পানিতে সয়লাব হয়ে গেছে। এসব রাস্তা দিয়ে হাঁটাও ভীষণ কষ্টকর। ইয়ারপুর ইউনিয়নের বিভিন্ন সড়ক, আশুলিয়া, শিমুলিয়া, সাভার সদর, বিরুলিয়া, পাথালিয়া ইউনিয়নের বিশমাইল-গকুলনগর সড়ক সহ বিভিন্ন সড়কের বেহাল দশা হয়ে দাঁড়িয়েছে। মেরামত করার যেন কেউ নেই।

বিভিন্ন এলাকার বাসিন্দারা বলছেন, প্রায়ই সড়কের কাজ করা হয়। সড়ক সংস্কারের জন্য কোটি কোটি টাকা বরাদ্দ এলেও দায়সারাভাবে কাজ করা হয়। তাই কিছুদিন যেতে না যেতেই রাস্তা-ঘাট আবারও খানাখন্দে ভরে যায়। এছাড়া পরিকল্পিত পয়োনিষ্কাশন (ড্রেনেজ) ব্যবস্থা না থাকায় পানি জমে সড়ক দ্রুত নষ্ট হয়ে যায়।

এলাকাবাসী ও সড়ক ব্যবহারকারীরা দ্রুত রাস্তাগুলো মেরামত করে যানচলাচলের উপযোগী করে তোলার জন্য প্রশাসনের প্রতি আহবান জানিয়েছেন।

;

আ.লীগে কোন সন্ত্রাস-চাঁদাবাজের ঠাঁই নেই: ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, সাভার (ঢাকা)
দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা.এনামুর রহমান

দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা.এনামুর রহমান

  • Font increase
  • Font Decrease

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগে কোন সন্ত্রাস ও চাঁদাবাজের ঠাঁই নেই বলে মন্তব্য করেছেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা.এনামুর রহমান। শুক্রবার (২০ মে) সকালে সাভারের পার্বতীনগর এলাকায় ঢাকা জেলা উত্তর মহিলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে যোগ দিয়ে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন।

দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা.এনামুর রহমান আরও বলেন, আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন সঠিক সময়ে হবে সকল রাজনৈতিক দল নির্বাচনে অংশ নিবে। তিনি আরও বলেন, আওয়ামী লীগ সরকারের উন্নয়ন দেখে বিএনপি এখনো দেশ বিরোধী ষড়যন্ত্র করছে।

সম্মেলনে ঢাকা জেলা উত্তর মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি নির্বাচিত হন সাভার উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান ইয়াসমিন চৌধুরী সুমি এবং সাধারণ সম্পাদক হন ডা. মিরানা জাহান।

এসময় ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সংসদ সদস্য বেনজীর আহমেদ, সাবেক সংসদ সদস্য শিরীন নঈম পুনম, মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সাফিয়া খাতুন, সাধারণ সম্পাদক মাহমুদা বেগম ক্রিক, সাভার উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি হাসিনা দৌলা, সাধারণ সম্পাদক মঞ্জুরুল আলম রাজীব, পৌর মেয়র আব্দুল গণিসহ আরো অনেকে।

;