নিষেধাজ্ঞা ভেঙে জাবি ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ মিছিল

  জাবি উপাচার্য অপসারণ আন্দোলন

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম, ঢাকা
নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে জাবি ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ মিছিল

নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে জাবি ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ মিছিল

  • Font increase
  • Font Decrease

জাবি থেকে: জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রশাসনের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে বিক্ষোভ-মিছিল করেছেন আন্দোলনকারী শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা।

বৃহস্পতিবার (৭ নভেম্বর) দুপুর সাড়ে ১২ টায় ‘দুর্নীতির বিরুদ্ধে জাহাঙ্গীরনগর’ ব্যানারে আন্দোলনকারীরা এ মিছিল বের করেন। মিছিলটি প্রসাশনিক ভবনের সামনে থেকে উপাচার্যের বাসভবনের দিকে যায়।

এর আগে বুধবার (৬ নভেম্বর) রাত ৮টায় ক্যাম্পাসে সব ধরনের সভা-সমাবেশ, মিছিল ও অফিস বা আবাসিক এলাকায় শিক্ষার্থীদের অবস্থানে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে বিশ্ববিদ্যলয় প্রশাসন।

জাবি উপাচার্যের বাসভবনের সামনে পুলিশের অবস্থান

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গত ৫ নভেম্বর ২০১৯ তারিখে অনুষ্ঠিত সিন্ডিকেটের জরুরি সভার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ৬ নভেম্বর থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল ক্লাস ও পরীক্ষা অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। ইতোমধ্যে শিক্ষার্থীরা আবাসিক হলসমূহ ত্যাগ করেছেন। বিশ্ববিদ্যালয়ের অভ্যন্তরের দোকানপাটও বন্ধ করা হয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ মনে করেন, এই সময়ে ক্যাম্পাসের অভ্যন্তরে কোনো শিক্ষার্থীর অবস্থান সমীচীন নয়।

নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে পূর্ব ঘোষিত কর্মসূচি অনুসারে মিছিল বের করেন শিক্ষার্থীরা

বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসের বাইরে এবং ভেতরে অবস্থানরত কোনো শিক্ষার্থী ক্যাম্পাসে সভা-সমাবেশ, মিছিল করতে পারবে না এছাড়া কোনো অফিস বা আবাসিক এলাকায় অবস্থান করতে পারবে না।

এ সময় আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা বিক্ষোভ মিছিলের স্লোগান দেন, ‘গেট আউট, গেট আউট, ফারজানা গেট আউট; ‘অবাঞ্ছিত ভিসি- ছি! ছি!; ‘এক দফা এক দাবি, ফারজানা তুই কবে যাবি; ‘ফারজানার বিরুদ্ধে, গড়ে তুলি আন্দোলন।

গতকাল বুধবারই নতুন কর্মসূচি ঘোষণা করে আন্দোলনকারীরা। কর্মসূচি শুরু হয় সকাল নয়টায় প্রশাসনিক ভবনে তালা দিয়ে। এরপর বিক্ষোভ মিছিল এবং সন্ধ্যা ছয়টায় উপাচার্যের বাসভবনের সামনে কনসার্ট অনুষ্ঠিত হবে। উপাচার্যের অপসারণ না হওয়া পর্যন্ত আমাদের আন্দোলন চলবে বলে জানান শিক্ষার্থীরা।

আপনার মতামত লিখুন :

  জাবি উপাচার্য অপসারণ আন্দোলন