Alexa

ছুটির মাঝে গাছ কীভাবে ভালো থাকবে?

ছুটির মাঝে গাছ কীভাবে ভালো থাকবে?

সঠিক পদ্ধতি জানা থাকলে ছুটির মাঝেও গাছ থাকবে তরতাজা, ছবি: সংগৃহীত

নিজ বাসার ছাদে কিংবা বারান্দাতে ছোটখাটো ঘরোয়া ও সৌখিন বাগান গড়ে তুলছেন অনেকেই।

পছন্দসই ফুল ও ফলের তবে বারান্দায় আলো ছড়ালে মনটাই যেন ভালো হয়ে যায়। কিন্তু লম্বা সময়ের জন্য ঈদের ছুটিতে বাড়ির বাইরে থাকতে গেলে প্রথমেই মাথায় আসে, ‘ছুটিতে বাইরে গেলে প্রিয় গাছগুলোর কী হবে?’

এমন চিন্তা অমূলক নয় একেবারেই। প্রতিদিন না হলেও, এক কিংবা দুই দিন পরপর গাছে পানি দেওয়া বাধ্যতামূলক, হোক সেটা হোম প্ল্যান্ট। কিন্তু ছুটিতে বাড়িতে কেউ না থাকলে গাছে পানি দেবে কে? এ সময়ের মাঝে কী হবে গাছের?

আপনি নিজেও যদি এমন দুশ্চিন্তাতে থাকেন তবে এই পোস্টটি আপনার জন্যেই। এখানে সবার সুবিধার জন্য তুলে ধরা হলো দুইটি চমৎকার পদ্ধতি, যা আপনার গাছগুলোকে সুস্থ রাখতে কাজ করবে।

প্রথম পদ্ধতি:

এ পদ্ধতিতে আপনার প্রয়োজন হবে একটি পুরনো বোতলের। টব ও গাছের আকৃতি অনুযায়ী বোতল নির্বাচন করতে হবে। বোতলের প্লাস্টিকের মুখে ছোট ছোট কয়েকটি ছিদ্র করতে হবে। এবারে বোতল পানিপূর্ণ করে টবের মাটির ভেতর উল্টো করে গেঁথে দিতে হবে। এতে করে ছিদ্র করা বোতলের মুখের অংশ মাটির ভেতরে থাকবে। এতে করে গাছের যখন পানি প্রয়োজন হবে এবং মাটি শুকিয়ে যাবে, গাছ ও মাটি বোতলের পানি শোষণ করে টেনে নেবে।

তবে খেয়াল রাখতে হবে মাটি যেন ভেজা থাকে অর্থাৎ মাটি যেন শুকনা না থাকে। নতুবা শুকনো মাটি বোতলের পানি সাথে সাথেই টেনে নেবে। লম্বা সময় পর্যন্ত পানি সংরক্ষণ থাকবে না।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/May/30/1559221448910.jpg

দ্বিতীয় পদ্ধতি:

এই পদ্ধতিতে পানি রাখার জন্য যেকোন ধরনের পাত্র ও পানি শোষণ করতে পারে এমন দড়ি প্রয়োজন হবে। প্রথমেই দড়ি একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ অংশে কেটে নিতে হবে। সেটা হতে পারে দুই-তিন হাত পর্যন্ত। এবারে যে গাছগুলোতে পানি দেওয়া প্রয়োজন হবে সে গাছেরর মাটির ভেতরে কেটে নেওয়া দড়ির একটা অংশ গেঁথে দিতে হবে। খেয়াল রাখতে হবে, দড়ির অংশ যেন মাটির ভেতরে ভালভাবে গেঁথে থাকে। দড়িটির ওপর অংশ পানিভর্তি পাত্রে ডুবিয়ে দিতে হবে। এতে করে গাছ তার প্রয়োজনীয় পানি দড়ির মাধ্যমে শোষণ করে নিতে পারবে।

তবে এই পদ্ধতির ক্ষেত্রে দুইটি বিষয় মাথায় রাখতে হবে। প্রথমত, পানিভর্তি পাত্রটি আলো ও রোদযুক্ত স্থানে না রেখে ছায়াযুক্ত স্থানে রাখতে হবে। নতুবা রোদের আলোয় পানি দ্রুত শুকিয়ে যাবে।

দ্বিতীয়ত, পানিভর্তি পাত্রটি টবের চাইতে তুলনামূলক উঁচু স্থানে রাখতে হবে। এতে করে পানি চলাচলে সুবিধা হবে।

এই সহজ দুইটি পদ্ধতির যেকোন একটি সঠিকভাবে মেনে সবকিছু ঠিকঠাক করতে পারলে, পুরো ছুটির সময়টুকু গাছের বিষয়ে একদম নিশ্চিন্ত থাকা যাবে।

আরও পড়ুন: পেঁয়াজের যে ব্যবহারগুলো জানা নেই আপনার

আরও পড়ুন: মুখ থেকে দূর হবে রসুনের দুর্গন্ধ

আপনার মতামত লিখুন :