পরমায়ু এলে আত্মজীবনী লিখে যেতে চাই

মাহমুদ হাফিজ, কন্ট্রিবিউটিং এডিটর, বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম
কবি হেলাল হাফিজ

কবি হেলাল হাফিজ

  • Font increase
  • Font Decrease

আজ ৭ অক্টোবর বিরলপ্রজ কবি হেলাল হাফিজ ৭২তম জন্মদিন। এ উপলক্ষে বার্তাটোয়েন্টিফোর.কমকে কবি বলেছেন, পরমায়ু পেলে জীবনের শেষ সৃষ্টি হিসেবে আত্মজীবনী লিখে যেতে চাই। সামনে নতুন আরেকটি কবিতার বই ‘বেদনাকে বলেছি কেঁদো না’ প্রকাশের প্রস্তুতি নিচ্ছি। ‘যে জলে আগুন জ্বলে’র পর এটা হবে আরেকটি মৌলিক কাব্যগ্রন্থ”।

জাতীয় প্রেসক্লাবে এক আলাপচারিতায় ৭২তম জন্মদিন উপলক্ষে কবি এ বার্তা দেন।

‘যে জলে আগুন জ্বলে’ নামের একটি মাত্র বই এর মাধ্যমে কবি হেলাল হাফিজ তুমুলভাবে জনপ্রিয় হয়ে ওঠেন। ১৯৮৭ সালে প্রথম প্রকাশিত হওয়ার পর অর্ধশতাধিক সংস্করণ প্রকাশিত হয়েছে এই বইয়ের। বইয়ের মাত্র ৫৬টি কবিতা মানুষের মুখে মুখে ফেরে। নিষিদ্ধ সম্পাদকীয়, অশ্লীল সভ্যতা, ফেরিওলা, হিরণবালা, রাখাল, হিজলতলীর সুখ, দু:খের আরেক নাম ইত্যাদি কবিতা জনপ্রিয়তার তুঙ্গে। ‘বাংলার কবিতা’ নামে একটি ওয়েবসাইট হিসবে কষে দেখিয়েছে হেলাল হাফিজ এর কোন কোন কবিতা অনলাইনে ১৬ হাজার বারের বেশি পড়া হয়েছে। ১৯৬৯ এর গণ আন্দোলনের সময় এই কবির কবিতার পঙক্তি ‘এখন যৌবন যার মিছিলে যাবার তার শ্রেষ্ঠ সময়, এখন যৌবার যার যুদ্ধে যাবার তার শ্রেষ্ঠ সময়’ দেয়ালে দেয়ালে স্থান পেয়েছিল এবং আন্দোলনের অন্যতম প্রেরণাশক্তি হিসেবে কাজ করেছিল। বিশ্ববিদ্যালয়ে কবি তারকা হয়ে উঠেছিলেন। জীবনের  প্রান্তবেলায় গভীর আনন্দের সঙ্গে সেসব কথা স্মৃতিচারণ করেন।

সম্প্রতি প্রকাশিত হয় কবির আরেকটি বই ‘এক জীবনের জন্মজখম’। দ্বিভাষিক কবিতার বইটি হেলাল হাফিজ এর কবিতাসমগ্র বলে প্রচ্ছদে বলা হয়। কবি বার্তা টোয়েন্টিফোর ডটকমকে এর আগে কবি বলেন, কবিতাসমগ্র বলা হলেও মোট প্রকাশিত কবিতার সংখ্যা একশ’রও কম। নতুন বইয়ে ৮৮ কবিতা স্থান পেয়েছে। এর ৭১টি আগের বই থেকে নেয়া। 

প্রথম বই ‘যে জলে আগুন জ্বলে’ প্রকাশের ২৫ বছর পর ২০১২ সালে ‘কবিতা একাত্তর’ প্রকাশিত হয়। এ বছর যুবক অনার্য’র অনুবাদসহ ‘কবিতা একাত্তর’ এর দ্বিভাষিক সংস্করণ প্রকাশ করে দিব্যপ্রকাশ। ইংরেজি অনুবাদে এর নাম দেয়া হয় ‘দ্য টিয়ার্স দ্যাট ব্লেজ’। কবিতা একাত্তরে প্রথম গ্রন্থের ৫৬টি কবিতার সঙ্গে নতুন ১৫টি নতুন কবিতা যুক্ত হয়। নতুন বই ‘এক জীবনের জন্মজখম’ বইটিতে আগের ৭১টির সঙ্গে ১৭টি নতুন কবিতা যুক্ত হয়েছে, যা নিয়ে মোট কবিতার সংখ্যা দাঁড়ায় ৮৮টিতে।

হেলাল হাফিজ এর সত্তরোর্ধ বয়সের জীবনটি কেটে গেছে কবিতাকে ঘিরে। তার প্রকাশিত কবিতার সংখ্যা একশ’য়েরও কম। এতো স্বল্পসংখ্যক কবিতা দিয়েই সাহিত্যে জনপ্রিয় হয়ে ওঠা, টিকে থাকা এবং কয়েক দশক ধরে পাঠকহৃদয়ে সমকালীন থাকা সাহিত্যে  বিস্ময়কর। এ কারণে  তাকে বিরলপ্রজ বলে অভিহিত করা হয়।

কবিকে জন্মদিনের অফুরন্ত শুভেচ্ছা।

আপনার মতামত লিখুন :